আইফোনে ফেস আইডি কিভাবে চালায় জানুন

অ্যাপল এর ডিভাইসগুলোতে ফেস আইডি একটি অত্যন্ত আকর্ষণীয় ফিচার। ফেইস আইডি ব্যবহার করে খুব সহজে নির্দিষ্ট অ্যাপল ডিভাইস আনলক এর পাশাপাশি আরো অনেক কাজ করা যায়। এই পোস্টে ফেস আইডি কি, কিভাবে সেটাপ ও ব্যবহার করতে হয়, সে সম্পর্কে বিস্তারিত জানবেন।

ফেস আইডি কি?

আইফোন ১০ থেকে টাচ আইডি এর পরিবর্তে আইফোনে ফেস আইডি ফিচারটি নিয়ে আসে অ্যাপল। নাম শুনেই বুঝতে পারছেন ফেস আইডি কি ও এর কাজ কি হতে পারে। মূলত ফেস বা মুখমণ্ডলকে অথেনটিকেশন এর মাধ্যম হিসেবে ব্যবহার করে ফোন আনলক, পেমেন্ট অথেনটিকেশন, ইত্যাদি কাজ করা যায় ফেস আইডি ফিচার দ্বারা। টাচ আইডি এর চেয়ে ফেস আইডি আরো উন্নত ও নিরাপদ প্রযুক্তি বলে দাবি অ্যাপলের।

ফেইস আইডি আছে যেসব ডিভাইসে

২০১৭ সালে আইফোন এক্স (১০) এর সাথে ফেস আইডির যাত্রা শুরু হয়। এরপর আইফোন ও আইপ্যাড এর অনেক মডেলে ফেস আইডির দেখা মিলে। এই ফেস আইডি দ্বারা আইওএস ডিভাইস আনলক করার পাশাপাশি পারচেজ ও অথেনটিকেট করা যায়। যেসব আইফোন ও আইপ্যাড বর্তমানে ফেস আইডি সাপোর্ট করে, সেগুলো হলোঃ

  • আইফোন এক্স, এক্সআর, এক্সএস ও এক্সস ম্যাক্স
  • আইফোন ১১, ১১ প্রো, ১১ প্রো ম্যাক্স
  • আইফোন ১২, ১২ মিনি, ১২ প্রো, ১২ প্রো ম্যাক্স
  • আইফোন ১৩, ১৩ মিনি, ১৩ প্রো ও ১৩ প্রো ম্যাক্স
  • আইপ্যাড প্রো ১১-ইঞ্চি (১ম ও ২য় জেনারেশন)
  • আইপ্যাড প্রো ১২.৯ইঞ্চি (৩য় ও ৪র্থ জেনারেশন)
  • মোটকথা নির্দিষ্ট নতুন মডেলের আইফোন ও আইপ্যাডে ফেস আইডি আছে

ফেস আইডি সেটাপ করার নিয়ম

আইফোন ও আইপ্যাডে ফেস আইডি সেটাপ করা বেশ সহজ একটি প্রক্রিয়া। চলুন জেনে নেওয়া যাক কিভাবে খুব সহজে ফেস আইডি সেটাপ করতে হয় –

  • আইফোন বা আইপ্যাডে সেটিংস অ্যাপ ওপেন করুন
  • Face ID & Passcode অপশন সিলেক্ট করুন ও ডিভাইস পাসকোড চাইলে লিখুন
  • Set up Face ID অপশনে ট্যাপ করুন
  • আপনার ফোন পোর্ট্রেইট অরিয়েন্টেশনে (অর্থাৎ লম্বালম্বিভাবে) রেখে আপনার মুখের সামনে ধরুন
  • Get Started এ ট্যাপ করে এগিয়ে যান
  • স্ক্রিনে প্রদর্শিত গোলাকার প্রিভিউ ফ্রেমে ধীরে ধীরে আপনার মাথা ঘুরান ও স্ক্যানিং সম্পন্ন করুন
  • এরপর Done এ ট্যাপ করে এই প্রক্রিয়া সম্পন্ন করুন
  • ইতিমধ্যে পাসকোড সেট করা না থাকলে একটি পাসকোড সেট করে নিন যাতে ফেস আইডি কাজ না করলে পাসকোড ব্যবহার করা যায়
activating face id in iphone

মাস্ক পড়ে ফেস আইডি ব্যবহার

পূর্বে মাস্ক পরে ফেস আইডি ব্যবহার করার সুযোগ ছিলোনা। তবে করোনাভাইরাস মহামারীর সময়কালে আইওএস ১৫.৪ এর সাথে মাস্ক পরা অবস্থাতেও ফেস আইডি দ্বারা ফোন আনলক এর সুবিধা আসে। তবে এই ফিচারটি শুধুমাত্র আইওএস ১৫.৪ ও তার পরের ভার্সনে এবং আইফোন ১২ ও তার পরের আইফোনে কাজ করে।

মাস্ক পরা অবস্থায় ফেস আইডি ব্যবহার করতে Settings এ প্রবেশ করে Face ID & Passcode মেন্যুতে প্রবেশ করুন। এরপর Face ID with a Mask এর পাশে থাকা সুইচটি চালু করুন। এরপর পুনরায় আপনার ফেস স্ক্যানিং সম্পন্ন করুন।

অলটারনেট এপিয়ারেন্স সেট

ফেস আইডি স্ক্যান এর পর অলটারনেট এপিয়ারেন্স হিসেবে আরেকবার ফেস স্ক্যান করা যাবে। এই ফিচারের অনেক ব্যবহার রয়েছে। প্রথমত আপনি চাইলে ভালোভাবে আপনার ফেস রেজিস্টার করতে পারবেন, আবার বিশ্বস্ত কারো ফেস ব্যবহার করে আনলক এর জন্য ফেস আইডি সেট করতে পারবেন। Settings এ প্রবেশ করে Face ID & Passcode মেন্যুতে প্রবেশ করে Set Up an Alternate Appearance অপশন সিলেক্ট করে অলটারনেট এপিয়ারেন্স সেট করতে পারবেন।

এছাড়াও চশমা পরা অবস্থায় ফেস আইডি ব্যবহার করতে চাইলে সে সুযোগ ও রয়েছে। আপনার চশমাসহ যাতে ফেস আইডি আপনাকে চিনতে পারে, তার জন্য আরেকটি স্ক্যান করতে পারবেন। প্রথমে আপনার চশমা পড়ে নিন ও তারপর Add Glasses অপশনে ট্যাপ করে স্ক্যানিং সম্পন্ন করে এই ফিচারটি ব্যবহার করতে পারবেন।

🔥🔥 গুগল নিউজে বাংলাটেক সাইট ফলো করতে এখানে ক্লিক করুন তারপর ফলো করুন 🔥🔥

আইফোনে ফেস আইডি কিভাবে চালায় জানুন

👉 আইফোন ব্যাটারি ব্যাকআপ বাড়ানোর উপায়

ফেস আইডি এর ব্যবহার

ফেস আইডি সেটাপ তো করা হলো, এবার চলুন জেনে নেওয়া যাক ফেস আইডি এর কিছু ব্যবহার সম্পর্কে।

প্রথমত, ফেস আইডি ব্যবহার করে আপনার আইফোন বা আইপ্যাড আনলক করতে পারবেন। শুধুমাত্র স্ক্রিনের দিকে তাকানোর মাধ্যমে ফোনের লক খুলে যাবে ফেস আইডি এর সাহায্যে। ফোনের টপে থাকা লক আইকনটি আনলক হয়ে যায় ফেস আইডি এর মাধ্যমে অ্যাপল ডিভাইস আনলক করার পর।

দ্বিতীয়ত, ফেস আইডি ব্যবহার করে পারচেজ বা পেমেন্ট অথেনটিকেট করা যায়। এছাড়া অ্যাপ স্টোর বা আইটিউনস স্টোর থেকে কিছু ডাউনলোড এর সময় ভেরিফিকেশন প্রক্রিয়ার অংশ হিসেবে ফেস আইডি ব্যবহার করা যেতে পারে। 👉 আইফোন এর ফেইস আইডি সম্পর্কে অজানা কিছু তথ্য জানুন।

আবার, আপনার তথ্য কিংবা পাসকোড প্রয়োজন হয় এমন অ্যাপ এর ক্ষেত্রেও ফেস আইডি ব্যবহার করা যেতে পারে। অর্থাৎ অ্যাপ এর কোনো নির্দিষ্ট ফিচার বা অ্যাপকে কোনো নির্দিষ্ট পারমিশন প্রদান করতে ফেস আইডি ব্যবহার করতে পারবেন। এছাড়া কোনো অ্যাপ বা ওয়েবসাইটে অটো-ফিল এর ক্ষেত্রে অথেনটিকেশন মেথড হিসেবে ফেস আইডি কাজ করে।

👉 বোনাস ভিডিওঃ গ্রামীণফোন ই-সিম সম্পর্কে যেসব তথ্য আপনার জানা দরকার

👉 আমাদের ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করে সাথেই থাকুন। এখানে ক্লিক করে সাবস্ক্রিপশন কনফার্ম করুন!

সর্বশেষ প্রযুক্তি বিষয়ক তথ্য সরাসরি আপনার ইমেইলে পেতে ফ্রি সাবস্ক্রাইব করুন!

Join 7,060 other subscribers

[★★] প্ৰযুক্তি নিয়ে লেখালেখি করতে চান? এক্ষুণি একটি টেকবাজ একাউন্ট খুলে বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি নিয়ে পোস্ট করুন! techbaaj.com ভিজিট করে নতুন একাউন্ট তৈরি করুন। হয়ে উঠুন একজন দুর্দান্ত টেকবাজ!

Leave a Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.