আইফোন ১০ এর অবাক করা ফিচারগুলো জেনে নিন!

  • আইফোন ১০ এর নাম লেখার সময় রোমান হরফে ‘আইফোন এক্স/iPhone X’ লেখা হলেও উচ্চারণে একে ‘আইফোন টেন’ বলা হয়। ফোনটিতে কোনো হোম বাটন নেই- কারণ, এর সামনের দিকে পুরোটাই স্ক্রিন!
    মজবুত কাঁচ ও সার্জিকাল-গ্রেড স্টেইনলেস স্টিলের তৈরি বডি।
  • ব্র্যান্ড নিউ ৫.৮ ইঞ্চি সুপার রেটিনা (OLED) ডিসপ্লে (১১২৫ x ২৪৩৬পি, ৪৫৮পিপিআই)। এতে ১০,০০,০০০ টু ১ কনট্রাস্ট রেশিও পাবেন।
  • কোনো ফিঙ্গারপ্রিন্ট স্ক্যানার নেই। আইফোন টেন এ অত্যাধুনিক ফেইস আনলক সুবিধা ‘ফেইস আইডি’ আছে, যার মাধ্যমে ফোনের দিকে তাকিয়েই এটি আনলক করা যাবে। আইফোন 10 এর এই ফেইস আইডি ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সরের চেয়ে নিরাপদ ও দ্রুত বলে অ্যাপলের দাবী।
  •  

  • আইফোন টেন এ আপনার নিজের চেহারা দিয়ে অ্যানিমেটেড ইমোজি বানাতে পারবেন।
  • এর ট্রুডেপ্‌থ ক্যামেরা ছবির বিষয়বস্তু আরও বিস্তারিতভাবে ক্যাপচার করতে পারে। পেছনের দিকে আছে ১২ মেগাপিক্সেল ডুয়াল ক্যামেরা, ডুয়াল টোন কোয়াড এলইডি ফ্ল্যাশ। সামনের দিকে রয়েছে ৭ মেগাপিক্সেল ক্যামেরা।
  •  

    সর্বশেষ প্রযুক্তি বিষয়ক তথ্য সরাসরি আপনার ইমেইলে পেতে ফ্রি সাবস্ক্রাইব করুন!

    Join 3,351 other subscribers

  • আইফোন ১০ এ এসেছে নতুন ৬৪ বিট ৬ কোর অ্যাপল এ১১ বায়োনিক চিপসেট, যার মধ্যে ৪.৩ বিলিয়ন ট্রানজিস্টর আছে। এটা সেকেন্ডে ৬০০ বিলিয়ন কাজ করতে পারে! এতে আছে ৩ জিবি র‍্যাম।
  • আইফোন ১০ এ পাবেন অগমেন্টেড রিয়েলিটি, যা আপনাকে বাস্তবের সাথে চমৎকার সব ভার্চুয়াল বিষয়বস্তু যুক্ত করার সুবিধা দেবে।
  • আরও আছে ওয়্যারলেস চার্জিং। ব্যাটারি টকটাইম ২১ ঘন্টা পর্যন্ত, মিউজিক প্লে ৬০ ঘন্টা পর্যন্ত।
  • অপারেটিং সিস্টেমঃ আইওএস ১১
    আইফোন ১০ এর ৬৪জিবি ভ্যারিয়েশনের দাম হবে ৯৯৯ ডলার, এবং ২৫৬জিবি ভ্যারিয়েশনের দাম হবে ১১৪৯ ডলার। এটি স্পেস গ্রে এবং সিলভার কালারে পাওয়া যাবে।

Comments