স্মার্টফোনে স্যাটেলাইট সংযোগ প্রযুক্তি প্রকাশ করল স্যামসাং

কিছু মাস আগে মুক্তি পাওয়া নতুন আইফোন ১৪ সিরিজের স্যাটেলাইট সংযোগ ফিচারের কথা মনে আছে তো? এবার একই বিষয়ে খবরে চলে এলো স্যামসাং। সম্প্রতি স্যামসাং জানিয়েছে তারা একটি সিস্টেম ডেভলপ করেছে যা ব্যবহার করে স্মার্টফোন ইউজারগণ স্যাটেলাইট এর মাধ্যমে ডাটা পাঠাতে পারবেন। এর ফলে ফোনকে নন-টেরেস্টিয়াল নেটওয়ার্ক এর সাথে যুক্ত করার প্রতিযোগিতা এগিয়ে গেলো আরো একধাপ।

দক্ষিণ কোরিয়ান কনজ্যুমার ইলেকট্রনিকস জায়ান্ট স্যামসাং এর এই নতুন মডার্ন টেকনোলজি ব্যবহার করে টু-ওয়ে মেসেজিং এর পাশাপাশি ছবি ও ভিডিও শেয়ার করা যাবে ভবিষ্যতে। এই ডাটা স্পেসে থাকা পৃথিবীর অরবিট স্যাটেলাইটে পাঠানো হবে ও পৃথিবীতে থাকা স্টেশনের মাধ্যমে আবার ব্যবহারকারীর কাছে পৌঁছে যাবে।

তবে স্যামসাং এখনো তাদের স্যাটেলাইট ক্যাপাবিলিটি লঞ্চ করেনি। তবে তারা জানিয়েছে নিজেদের এক্সিনোস মোবাইল প্রসেসরে এই প্রযুক্তি যুক্ত করার পরিকল্পনা রয়েছে। ধারণা করা যায় নিজেদের গ্যালাক্সি স্মার্টফোন সিরিজে এই ফিচার প্রথম নিয়ে আসবে স্যামসাং। সম্প্রতি নিজেদের গ্যালাক্সি এস২৩ সিরিজ মুক্তি পেলেও সেখানে স্যাটেলাইট কানেকটিভিটি রাখেনি স্যামসাং।

স্যামসাং এর স্যাটেলাইট প্রযুক্তির খবর আসছে আইফোন ১৪ সিরিজে স্যাটেলাইট প্রযুক্তি পরিচয় করিয়ে দেওয়ার পরেই। অ্যাপলের প্রযুক্তি ব্যবহার করে নেটওয়ার্ক নেই এমন স্থান থেকে স্পেসে থাকা স্যাটেলাইটের দিকে ফোন পয়েন্ট করে ইমার্জেন্সি যোগাযোগ স্থাপন করা যায়। স্যাটেলাইট ফোন এখনো বাণিজ্যিক কোনো মেইনস্ট্রিম প্রযুক্তি নয়। তবে পৃথিবীর অনেক প্রত্যন্ত অঞ্চলে এখনো নেটওয়ার্ক পৌঁছায়নি যে সমস্যার সহজ সমাধান হতে পারে স্যাটেলাইট কানেকটিভিটি। যেসব এরিয়া নেটওয়ার্ক এর বাইরে পড়ে সেগুলোকে বেশ সহজে নেটওয়ার্ক এর আওতায় আনা সম্ভব হবে এই প্রযুক্তি ব্যবহার করে।

অ্যাপল এর পর স্যামসাং এই একই প্রযুক্তি নিয়ে কাজ করার মাধ্যমে আমরা ধারণা করতে পারি খুব শীঘ্রই সকল ফ্ল্যাগশিপ ফোনের ডিফল্ট ফিচার হতে যাচ্ছে স্যাটেলাইট কানেকটিভিটি। অ্যাপল অনেক সময় কোনো নতুন প্রযুক্তি সবার আগে মেইনস্ট্রিম গ্রাহকের কাছে নিয়ে আসে। পরে অন্যান্য ম্যানুফ্যাকচারার ঐ ফিচারগুলো অনুকরণ করে। অ্যাপলের পথে অন্যদের হাঁটার প্রবণতা আমরা ইতিমধ্যে অনেকবারই দেখেছি।

samsung mobile satellite connectivity

🔥🔥 গুগল নিউজে বাংলাটেক সাইট ফলো করতে এখানে ক্লিক করুন তারপর ফলো করুন 🔥🔥

গতবছরের সেপ্টেম্বর মাসে আইফোন ১৪ সিরিজ মুক্তি পায়। এরপরেই আমরা দেখেছি স্যাটেলাইট কমিউনিকেশন ফার্ম ইরিডিয়াম এর সাথে যুক্তরাষ্ট্রের সেমিকন্ডাক্টর কোম্পানি কোয়ালকম চুক্তি করে যার মাধ্যমে অ্যান্ড্রয়েড ফোনে এই ফিচারটি আনা সম্ভব হবে। এদিকে আবার তাইওয়ানীয় চিপমেকিং ফার্ম, মিডিয়াটেক, শীঘ্রই বার্সেলোনাতে মোবাইল ওয়ার্ল্ড কনগ্রেসে তাদের মোবাইল স্যাটেলাইট প্রযুক্তি প্রদর্শন করার কথা রয়েছে।

স্যামসাং জানিয়েছে তাদের এই স্যাটেলাইট প্রযুক্তি তৃতীয় জেনারেশন পার্টনারশিপ প্রজেক্ট স্ট্যান্ডার্ডে তৈরী, যার মানে হলো বিশ্বব্যাপী বিভিন্ন টেলিকম ক্যারিয়ার, মোবাইল ডিভাইস নির্মাতা ও চিপ কোম্পানিগুলো এই সেবা পেতে যাচ্ছে।

স্যামসাং এর নতুন প্রযুক্তির কল্যাণে স্মার্টফোনের মধ্যে কোনো ধরনের আলাদা হাই-পাওয়ার ওয়্যারলেস এন্টেনা চিপ প্রয়োজন হবেনা। অনেক বছর ধরে স্যাটেলাইট ফোন নিয়ে কাজ চললেও ডিভাইসের মধ্যে বড় এন্টেনা ব্যবহারের প্রয়োজন হতো। অবশেষে সকল প্রযুক্তি কোম্পানিগুলো এই কাজে এগিয়ে আসায় মেইনস্ট্রিম মার্কেটে এই প্রযুক্তি দেখা যাবে বলে আশা করা যায়।

👉 আইফোন ১৪ স্যাটেলাইট মেসেজিং যেভাবে কাজ করে

📌 পোস্টটি শেয়ার করুন! 🔥

সর্বশেষ প্রযুক্তি বিষয়ক তথ্য সরাসরি আপনার ইমেইলে পেতে ফ্রি সাবস্ক্রাইব করুন!

Join 8,558 other subscribers

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *