আপনার কি এখনও অপেরা মিনি ব্রাউজার ব্যবহার করা উচিত?

অপেরা মিনি নামটি মোবাইল ইন্টারনেট ব্যবহারকারীদের কাছে বেশ পুরনো। কেননা এটিই ছিলো ২জি ইন্টারনেটের যুগে সবথেকে জনপ্রিয় মোবাইল ব্রাউজার। ২জি ইন্টারনেট স্বভাবতই ছিলো বেশ ধীরগতির। প্রতি সেকেন্ডে এই ইন্টারনেট সর্বোচ্চ ৩০ থেকে ৫০ কিলোবাইট পর্যন্ত গতি তুলতে পারতো। এই ধীরগতির মোবাইল ইন্টারনেট ভালোভাবে ব্যবহারের জন্যই হালকা ও বিশেষ কিছু সুবিধা সহ অপেরা কোম্পানি তৈরি করেছিল তাদের অপেরা মিনি ব্রাউজারটি। তখনকার জাভা সাপোর্টেড বিভিন্ন বাটন ফোনে অপেরা মিনি ছিলো ইন্টারনেট ব্যবহারের জন্য সবথেকে জনপ্রিয় ব্রাউজার।

অপেরা মিনি ব্রাউজারটি বেশ পুরনো হলেও আজও এই ৫জি মোবাইল ইন্টারনেটের যুগে এসে স্মার্টফোনে ব্যবহার করা যায়। অপেরা মিনি ব্রাউজারের মূল উদ্দেশ্যই হচ্ছে ধীরগতির ইন্টারনেটেও যেন খুব সহজে ও সাবলীলভাবে ব্রাউজিং করা সম্ভব হয়। তবে মোবাইল ইন্টারনেটের গতি ও স্মার্টফোনগুলোর শক্তির অভূতপূর্ব উন্নতি হওয়ায় আজ আর এই ব্রাউজারটি তেমন জনপ্রিয় নয়। তবে সেরকমভাবে জনপ্রিয় না হলেও অপেরা মিনি ব্রাউজার আজও বেশ কিছু ক্ষেত্রে কাজে লাগতে পারে আপনার। আজ আমরা এই পুরনো অপেরা মিনি ব্রাউজার নিয়ে আলোচনা করবো এই পোস্টে।

অপেরা মিনি ব্রাউজারের বিবর্তন

অপেরা মিনি ব্রাউজার প্রথম তৈরি করা হয়েছিল জাভা সাপোর্টেড মোবাইলের জন্য। স্মার্টফোন যুগের পূর্বে জাভা সাপোর্ট করা বাটন ফোন ছিলো বাজারের শীর্ষ অবস্থানে। তখন থেকেই মোবাইলে ইন্টারনেট অর্থাৎ টুজি ইন্টারনেট বেশ জনপ্রিয় হতে শুরু করে। জাভা সাপোর্টেড মোবাইল ফোনে সহজে ইন্টারনেট ব্রাউজিং করার সুবিধা এনে দিতেই অপেরা মিনি ব্রাউজারটির প্রথম ভার্সন আসে ২০০৫ সালে। খুব দ্রুতই অপেরা মিনি ব্যবহারকারীদের কাছে জনপ্রিয় হয়ে ওঠে দ্রুতগতির পেজ লোডিং ও ব্রাউজিং সুবিধার জন্য।

অপেরা মিনি ব্রাউজার খুব সহজেই ছোট স্ক্রিনের মোবাইল ফোনে ওয়েবপেজের ডেস্কটপ ভিউ দেখাতে পারতো। ফলে কোনো ওয়েবসাইট মোবাইলের জন্য ডিজাইন না করা হলেও অপেরা মিনি দিয়ে সহজেই ব্রাউজ করা যেত। আর এজন্যই অপেরা মিনি দ্রুত জনপ্রিয়তা পেতে থাকে। এরপর ২০০৮ সালে অ্যান্ড্রয়েড ও আইফোনের সাথে সাথে স্মার্টফোন বাজারে দখল করে নেয়া শুরু করলে প্রথম অ্যান্ড্রয়েডের জন্য অপেরা মিনি তাদের ব্রাউজার অ্যাপ নিয়ে আসে। ২০১০ সালে অ্যাপলের আইওএসের জন্যও অপেরা মিনি তৈরি করা হয়। এছাড়া উইন্ডোজ ফোনের জন্যও অপেরা মিনি তাদের ব্রাউজারটি তৈরি করেছিল।

অপেরা মিনির বর্তমান অবস্থা

অপেরা মিনি এখনও আইফোন ও অ্যান্ড্রয়েডের জন্য অ্যাপস্টোরে পাওয়া যায়। তবে শুধুমাত্র অ্যান্ড্রয়েড ফোনের জন্যই এটি এখনও তৈরি করা হচ্ছে। বিশেষ কিছু ফিচার অপেরা মিনি দেয় বলে এখনও এর কিছুটা চাহিদা গ্রাহকদের কাছে রয়েছে। তাই অপেরা তাদের মূল ব্রাউজারের সাথে সাথে অপেরা মিনির উন্নতিতেও কাজ করে যাচ্ছে। অর্থাৎ অন্য সকল জনপ্রিয় প্লাটফর্মে বর্তমানে অপেরা মিনি বন্ধ হয়ে গেলেও অ্যান্ড্রয়েড স্মার্টফোনে এটি আপনি সহজেই ব্যবহার করতে পারবেন।

opera mini browser

🔥🔥 গুগল নিউজে বাংলাটেক সাইট ফলো করতে এখানে ক্লিক করুন তারপর ফলো করুন 🔥🔥

কিছু কিছু জাভা সাপোর্টেড বাটন ফোনে এখনও অপেরা মিনিকে ব্রাউজার হিসেবে প্রিইনস্টল করে দেয়া হয়। নোকিয়া ও অন্যান্য কিছু ব্র্যান্ডের ফিচার ফোনে টুজি সুবিধা থাকায় অপেরা মিনি এসব ফোনে বেশ ভালো কাজ করে।

অপেরা মিনি এখনও কেন ব্যবহার করবেন

অপেরা মিনি ব্রাউজারের অন্যতম সুবিধা হলো, এই ব্রাউজার ধীরগতির ইন্টারনেটেও বেশ ভালো কাজ করতে পারে। আধুনিক ব্রাউজারগুলো উচ্চগতির ইন্টারনেটের সঙ্গে যেন ভালো কাজ করে তেমনভাবেই তৈরি করা হয় থাকে। তাই ধীরগতির ইন্টারনেট হলে এসব ব্রাউজার ওয়েব পেজ ঠিকভাবে লোড করতে পারে না। অপেরা মিনি এক্ষেত্রে ব্যতিক্রম।

অপেরা মিনি ওয়েব পেজকে নিজের প্রক্সি সার্ভারের মাধ্যমে ৯০ শতাংশ পর্যন্ত কমপ্রেস করে ফেলতে পারে। তাই খুব কম ডাটা ব্যবহার করে পুরো ওয়েব পেজ অপেরা মিনি দ্রুত আপনাকে দেখাতে সক্ষম। আর তাই ধীরগতির ইন্টারনেটে অপেরা মিনি ব্রাউজার এখনও সেরা।

প্রত্যন্ত অঞ্চলে বা যেখানে মোবাইল নেটওয়ার্ক পাওয়া দুষ্কর সেসব স্থানে অপেরা মিনি হতে পারে আপনার একমাত্র সম্বল। এসব দুর্গম এলাকায় সল্প গতির ইন্টারনেটে আপনি ব্রাউজিং করতে চাইলে অপেরা মিনি বেশ কাজে দেয়। এছাড়া আপনি লিমিটেড মোবাইল ইন্টারনেট ব্যবহার করে থাকলে ডাটার ব্যবহার কম রাখতেও অপেরা মিনি ব্যবহার করতে পারেন। অপেরা মিনি ডাটা অনেকটাই কমপ্রেস করে আপনার সামনে নিয়ে আসে বলে ভারী কোনো পেজের ক্ষেত্রেও এটি খুব কম ডাটা ব্যবহার করতে পারে। ফলে ডাটা সাশ্রয় করতে চাইলে অপেরা মিনি এখনও বেশ কার্যকর। 

👉 মোবাইল দিয়ে টাইপ করার বিভিন্ন উপায় জানুন

এছাড়া অপেরা মিনি অন্য অনেক মোবাইল ব্রাউজার হতে বেশ হালকা। আপনার কাছে যদি কম শক্তিশালী স্মার্টফোন থাকে তবে অপেরা মিনি খুব সহজেই আপনার ব্রাউজিং সামলে নিতে পারবে খুব বেশি রিসোর্স খরচ না করেই। অপেরা মিনি অন্য সকল ব্রাউজার থেকে দ্রুতগতিতে পেজ লোড করে ফেলতে পারে। তাই কম শক্তিশালী অ্যান্ড্রয়েড ফোনের জন্য অপেরা মিনি ভালো একটি ব্রাউজার।

বেশ কিছু কাজের ফিচার অপেরা মিনিতে উপস্থিত আছে। তাই অপেরা মিনি কিছু কিছু ক্ষেত্রে আপনাকে বেশ সাহায্য করতে পারে। খারাপ নেটওয়ার্ক বা ২জি গতির ইন্টারনেটেও অপেরা মিনিতে সহজে ব্রাউজিং করতে পারবেন। তাই বলা যায় আজও অপেরা মিনি বিশেষ অবস্থায় বেশ কাজের একটি ব্রাউজার হতে পারে আপনার জন্য।

ধীরগতির ইন্টারনেটে ব্রাউজিং সুবিধা দিতে চালু হলেও অপেরা মিনি এখন এত বছর পরেও বেশ ভালো একটি ব্রাউজার। অপেরা মিনির উদ্দেশ্য এখনও কম বাজেটের ফোন বা ধীরগতির ইন্টারনেটে সেরা ইন্টারনেট অভিজ্ঞতা দেয়া। সেই লক্ষ্যে এখনও বেশ সফলতার সঙ্গেই অপেরা মিনি ব্রাউজার ব্যবহারকারীদের সেবা দিয়ে যাচ্ছে। তাই অপেরা মিনি আজও বেশ কার্যকরী।

📌 পোস্টটি শেয়ার করুন! 🔥

সর্বশেষ প্রযুক্তি বিষয়ক তথ্য সরাসরি আপনার ইমেইলে পেতে ফ্রি সাবস্ক্রাইব করুন!

Join 8,572 other subscribers

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *