সিম্বিয়ান হ্যাকারদের ঠেকাতে মোটা অংকের ‘মুক্তিপণ’ দিয়েছিল নকিয়া!

২০০০ সালের দিকে, যখন নকিয়ার সিম্বিয়ান অপারেটিং সিস্টেম স্মার্টফোন জগতে নেতৃত্ব দিচ্ছিল, তখন হঠাত করেই কিছু দুর্বৃত্ত ফিনিশ কোম্পানিটিকে মারাত্নক এক হুমকি দেয়। একদল লোক দাবী করে যে, তাদের কাছে সিম্বিয়ান অ্যাপ সাইন করার কাজে ব্যবহৃত বিশেষ গোপন কোড রয়েছে যা ফাঁস করে দিলে হ্যাকাররা সহজেই তাদের ম্যালওয়্যার সাইন করে মার্কেটে ছেড়ে দিতে পারবে ও ব্যবহারকারীরা তাতে আক্রান্ত হবে।

এরকম হলে সিম্বিয়ান প্ল্যাটফর্মের জন্য তা অপূরণীয় ক্ষতি বয়ে আনবে। আর তাই, মাত্র কয়েক কিলোবাইটের সেই কোড বেহাত হয়ে যাওয়ার ব্যাপারটিকে গুরুত্বের সাথে দেখেছিল নকিয়া। কিন্তু কোডগুলোর অপব্যবহার যাতে না হয় সেই নিশ্চয়তা দিতে কয়েক মিলিয়ন ইউরো ‘মুক্তিপণ’ দাবি করেছিল সেই দুর্বৃত্তদল। আর উপায়ন্ত না দেখে নকিয়াও রাজী হয়ে গিয়েছিল সেই শর্তে।

এমটিভি ফিনল্যান্ড ও রয়টার্স জানাচ্ছে, ২০০৭ থেকে ২০০৮ সালের মধ্যে এরকমই একটি ব্ল্যাকমেইলের শিকার হয় নকিয়া। শর্ত অনুযায়ী ফিনল্যান্ডের একটি পার্কে কয়েক মিলিয়ন ইউরোভর্তি একটি ব্যাগ রেখে দেয় নকিয়া। আর দুর্বৃত্তরা সুযোগ বুঝে সেই ব্যাগটি হাতিয়ে নেয়। যদিও কোম্পানিটি সেখানে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীও সঙ্গে এনেছিল, তবে তাতে কোনো লাভ হয়নি। ব্ল্যাকমেইলাররা অতিশয় ধুর্ততার পরিচয় চিয়ে ঠিকই টাকার ব্যাগ নিয়ে চম্পট দেয়।

সর্বশেষ প্রযুক্তি বিষয়ক তথ্য সরাসরি আপনার ইমেইলে পেতে ফ্রি সাবস্ক্রাইব করুন!

Join 7,802 other subscribers

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.