ডাটা না কিনলেও ফেসবুক চলবে বাংলালিংক সিমে

অবশেষে বাংলালিংক ব্যবহারকারীদের অপেক্ষার অবসান হলো। ফ্রি ফেসবুক চালু হলো বাংলালিংক গ্রাহকদের জন্য। আপনার যদি একটি বাংলালিংক সিম থাকে তাহলে আপনি ডাটা না কিনেই ফেসবুক ব্যবহার করতে পারবেন। ইতোমধ্যেই গ্রামীণফোন, রবি, এয়ারটেলে ফ্রি ফেসবুক সুবিধা চালু হয়েছে। বাংলালিংক গ্রাহকরাও এই সুবিধা পাওয়ার জন্য অপেক্ষায় ছিলেন।

বাংলালিংকের এই বিনামূল্যে ফেসবুক অফারের সাথে বিনামূল্যে ডিসকভার সুবিধাও চালু হয়েছে। অন্যান্য অপারেটরের চেয়ে ডিসকভার অ্যাপে বেশি সুবিধা দিচ্ছে বাংলালিংক। চলুন জেনে নিই বাংলালিংকের ডাটা ছাড়া ফেসবুক, মেসেঞ্জার, এবং ডিসকভার সেবা সম্পর্কে বিস্তারিত।

বাংলালিংক ফ্রি টেক্সট-অনলি ফেসবুক সেবা

বাংলালিংক যে বিনামূল্যের ফেসবুক সুবিধা চালু করেছে সেটি অন্যান্য অপারেটরের মতই টেক্সট-অনলি। অর্থাৎ, আপনি এই অফারের আওতায় ফেসবুকে কোনো ছবি বা ভিডিও দেখতে পারবেন না। শুধু লেখা, ইমোজি, স্টিকার এসব দেখতে পারবেন। ফেসবুকের এই টেক্সট-অনলি ভার্সনে আপনি কমেন্ট করতে পারবেন, লাইক করতে পারবেন। পোস্ট শেয়ার করাও যাবে।

কিভাবে বাংলালিংকের বিনামূল্যের ফেসবুক সেবা ব্যবহার করব?

আপনি যদি ইতোমধ্যে গ্রামীণফোন, রবি, এয়ারটেলের বিনামূল্যে ফেসবুক সেবাটি ব্যবহার করে থাকেন তাহলে বাংলালিংকের এই টেক্সট অনলি ফেসবুক ব্যবহার করার জন্য আপনার খুব একটা চিন্তা করতে হবেনা। কারণ, মূলনীতি সব অপারেটরেই এক।

আপনার বাংলালিংক সিমে যদি ডাটা ব্যালেন্স ফুরিয়ে যায় তারপর ফ্রি ফেসবুক সুবিধা নিজ থেকেই চালু হয়ে যাবে। কি, অবাক হলেন? অবাক হওয়ার কিছু নেই! আপনি ফেসবুক অ্যাপ কিংবা ব্রাউজার থেকে ফেসবুক ব্যবহার করতে পারবেন বিনামূল্যে। এজন্য আপনাকে শুধু ফেসবুক অ্যাপ ওপেন করে অথবা ব্রাউজারে ফেসবুক সাইট ভিজিট করে ফ্রি ফেসবুকের টার্মসগুলোকে সম্মতি দিতে হবে। 

তবে হ্যাঁ, যদি আপনার বাংলালিংক একাউন্টে টাকা থাকে, তাহলে সেখান থেকে পে পার ইউজ পলিসির আওতায় ৬ টাকার মত খরচ হতে পারে। কারণ, মোবাইল ডাটা শেষ হলে পে অ্যাজ ইউ গো ইন্টারনেট প্যাকেজ নিজে নিজে চালু হয়ে যায়। যদি একাউন্টে কোনো টাকা না থাকে তাহলে পে পার ইউজ প্যাকটি চালু হতে পারবেনা। সুতরাং আপনার একাউন্টে টাকা থাকলে ৬ টাকার মত খরচ হতে পারে পে অ্যাজ ইউ গো প্ল্যানের কারণে।

পরবর্তী ডাটা প্যাক কেনার আগে পর্যন্ত, আপনার মোবাইল একাউন্টের মেয়াদ যতদিন থাকবে ততদিন এই ফ্রি সেবা ব্যবহার করতে পারবেন।

বাংলালিংকে ফ্রি ফেসবুক এবং ফ্রি ইন্টারনেট সেবা এলো

বাংলালিংক ফ্রি মেসেঞ্জার অফার

বাংলালিংকের ফ্রি মেসেঞ্জার অফারটি তখনই চালু হবে যখন আপনার মোবাইল ডাটার ব্যালেন্স শেষ হয়ে যাবে। অর্থাৎ, ফ্রি টেক্সট-অনলি ফেসবুক সেবার সাথে সাথেই ফ্রি মেসেঞ্জারও চালু হবে।

ফ্রি মেসেঞ্জার সেবার মাধ্যমে আপনি বিনামূল্যে লিখিত মেসেজ, স্টিকার, রিয়াক্ট এসব পাঠাতে পারবেন। কোনো ফটো বা ভিডিও দেখতে পারবেন না। অডিও বা ভিডিও কলও করতে পারবেন না। হঠাত ইন্টারনেট ডাটা শেষ হয়ে গেলে জরুরি তথ্য আদানপ্রদানের জন্য এটি ভাল একটি সেবা হতে পারে।

🔥🔥 গুগল নিউজে বাংলাটেক সাইট ফলো করতে এখানে ক্লিক করুন তারপর ফলো করুন 🔥🔥

বাংলালিংক ফ্রি মেসেঞ্জার কিভাবে চালাবো?

আপনি মোবাইল ব্রাউজার যেমন গুগল ক্রোম থেকে অথবা মেসেঞ্জার মোবাইল অ্যাপ থেকে এই সেবা চালাতে পারবেন। আপনার মোবাইলে যদি মেসেঞ্জার অ্যাপ থাকে তাহলে সেটি চালু করুন। আপনার মোবাইল ডাটা যদি শেষ হয়ে যায় তাহলে মেসেঞ্জার অ্যাপের মধ্যে ফ্রি সেবা চালু হওয়ার একটি নোটিফিকেশন দেখতে পাবেন। সেখানে শর্তসমূহ সম্মতি দিয়ে ফ্রি মেসেঞ্জার ব্যবহার করতে পারবেন।

মোবাইল ব্রাউজারে ফেসবুক মেসেঞ্জার সেবা ব্যবহার করতে চাইলে প্রথমে ফেসবুক সাইট ভিজিট করতে হবে। ফেসবুক সাইটের মধ্যে আপনি মেসেজ অপশন পাবেন। সেখান থেকে ফেসবুকের মেসেজিং সেবা ব্যবহার করতে হবে।

আর হ্যাঁ, এই ক্ষেত্রেও আপনার একাউন্টে টাকা থাকলে পে অ্যাজ ইউ গো চার্জ কাটতে পারে।

বাংলালিংক ফ্রি ডিসকভার অফার

ফেসবুকের আরেকটি সেবা “ডিসকভার”-  যেটি গ্রামীণফোন, রবি ও এয়ারটেলে আছে, সেটি বাংলালিংকেও এসেছে। ডিসকভার সেবাটির মাধ্যমে আপনি বিনামূল্যে ইন্টারনেট ব্যবহার করতে পারবেন। এটিও টেক্সট-অনলি। অর্থাৎ ফেসবুক ডিসকভার অ্যাপ কিংবা ওয়েবসাইটের মাধ্যমে আপনি বিভিন্ন সাইট ভিজিট করতে পারবেন। গুগল সার্চ করতে পারবেন। এগুলোতে কোনো ছবি দেখা যাবেনা। শুধু লেখা এবং আইকন দেখা যাবে। আরো জানুন 👉 ফেসবুক ডিসকভার দিয়ে ফ্রি ইন্টারনেট ব্যবহার করুন

কিভাবে বাংলালিংকে ফ্রি ডিসকভার ব্যবহার করব?

আপনি ফেসবুকের ডিসকভার মোবাইল অ্যাপ অথবা ডিকভার ওয়েবসাইটের মাধ্যমে এই সেবাটি ব্যবহার করতে পারবেন। আপনার বাংলালিংক সিমের ডাটা ব্যালেন্স ফুরিয়ে গেলে নিজ থেকেই এই অফারটি চালু হয়ে যাবে। প্রতিদিন সর্বোচ্চ ২০ মেগাবাইট ডাটা বাংলালিংক ডিসকভার সেবায় ব্যবহার করতে পারবেন। এই টেক্সট-অনলি ব্রাউজিংয়ে মাসে সর্বোচ্চ ৬০০ মেগাবাইট ডাটা ফ্রি দিবে বাংলালিংক। অন্যান্য অপারেটরগুলো প্রতিদিন সর্বোচ্চ ১৫ মেগাবাইট ডাটা দিচ্ছে (মাসে ১৫০ মেগাবাইট)।

ডিসকভার ওয়েবসাইট ভিজিট করুন

ডিসকভার অ্যাপ ডাউনলোড করুন

যদি আপনার বাংলালিংক সিমের মূল একাউন্ট ব্যালেন্সে টাকা থাকে তাহলে ডাটা ব্যালেন্স ফুরানোর পর পে অ্যাজ ইউ গো চার্জ হিসেবে ৬ টাকা পর্যন্ত চার্জ কাটতে পারে। যদি আপনার একাউন্টে কোনো টাকা না থাকে তাহলে এমবি ফুরিয়ে যাওয়ার পর সাথে সাথেই ফ্রি ডিসকভার সেবা ব্যবহার করতে পারবেন।

আপনি কি ফেসবুক বা মেটার এই ফ্রি সেবাগুলো ব্যবহার করেছেন? কেমন লাগছে? কমেন্টে জানান!

সর্বশেষ প্রযুক্তি বিষয়ক তথ্য সরাসরি আপনার ইমেইলে পেতে ফ্রি সাবস্ক্রাইব করুন!

Join 6,274 other subscribers

[★★] প্ৰযুক্তি নিয়ে লেখালেখি করতে চান? এক্ষুণি একটি টেকবাজ একাউন্ট খুলে বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি নিয়ে পোস্ট করুন! techbaaj.com ভিজিট করে নতুন একাউন্ট তৈরি করুন। হয়ে উঠুন একজন দুর্দান্ত টেকবাজ!

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.