বিকাশ রিওয়ার্ড কি ও কিভাবে পাবো?

বিকাশ রিওয়ার্ড নামে চমৎকার একটি ফিচার বিকাশ অ্যাপে যুক্ত হয়েছে। এটা অনেকটা ক্রেডিট কার্ড রিওয়ার্ডের মত। চলুন জেনে নেয়া যাক বিকাশ রিওয়ার্ড কি ও কিভাবে বিকাশ রিওয়ার্ড পাবেন।

বিকাশ রিওয়ার্ড কি? – What is bKash Reward?

বিকাশ রিওয়ার্ড মূলত বিকাশ এর পক্ষ থেকে চালু করা নতুন একটি রিওয়ার্ড প্রোগ্রাম। এই রিওয়ার্ড প্রোগ্রামের মাধ্যমে বিকাশ গ্রাহকরা অ্যাপ ব্যবহার করে বিভিন্ন এক্টিভিটির জন্য পয়েন্ট পাবেন।

রিওয়ার্ড হিসেবে পাওয়া পয়েন্ট ব্যবহার করা যাবে ক্যাশব্যাকের মত অফার পেতে। ব্যবহারযোগ্য পয়েন্ট এর তথ্য বিকাশ অ্যাপ এর “বিকাশ রিওয়ার্ডস” সেকশনে গেলেই দেখতে পাবেন।

রিওয়ার্ড সেকশনটি বিকাশ অ্যাপের উপরের দিকে ডান পাশে। একটি ট্রফি বা কাপের মত দেখতে এই আইকনে ক্লিক করলেই আপনি আপনার রিওয়ার্ড সেকশন দেখতে পাবেন। বিকাশ রিওয়ার্ড পয়েন্টগুলো অনেকটা ক্রেডিট কার্ড রিওয়ার্ড পয়েন্টের মত।

বিকাশ রিওয়ার্ড লেভেল – bKash Rewards Levels

বিকাশ রিওয়ার্ড এ প্রাপ্ত পয়েন্ট এর ভিত্তিতে ব্যবহারকারীরা বিভিন্ন লেভেলে অবস্থান করবেন। কোন ব্যবহারকারী কোন লেভেলে থাকবেন, সেটি তার পয়েন্টের উপর ভিত্তি করে নির্ধারিত হবে। একজন ব্যবহারকারী যত বেশি পয়েন্ট অর্জন করবেন তত উচ্চ লেভেলে পৌঁছে যাবেন। তার সাথে উপভোগ করতে পারবেন দারুণ সব রিওয়ার্ড। নির্দিষ্ট পয়েন্ট জমানোর পর সেই পয়েন্ট ভাঙিয়ে ক্যাশব্যাক পাওয়া যাবে। অর্থাৎ আপনি রিওয়ার্ড পয়েন্টের বিনিময়ে টাকা পাবেন। বিকাশ একাউন্ট খোলার নিয়ম জানতে এখানে ক্লিক করুন।

bkash reward - বিকাশ রিওয়ার্ড

আরো জানুনঃ বিকাশ লোন নেওয়ার উপায়

বিকাশ রিওয়ার্ড লেভেলগুলো হলোঃ

  • ব্রোঞ্জ
  • সিলভার
  • টাইটেনিয়াম
  • গোল্ড
  • প্লাটিনাম
  • ডায়মন্ড

বিকাশ রিওয়ার্ড এ পরবর্তী লেভেলে যেতে দরকার হবে আরো পয়েন্টের। আপনি যত উপরের লেভেলে যাবেন তত বেশি ক্যাশব্যাক পাবেন। চলুন জেনে নিই, বিকাশ রিওয়ার্ড পয়েন্ট কিভাবে পাবেন। 

আরো জানুনঃ বিকাশ অফার

বিকাশ রিওয়ার্ড কিভাবে পাবো?

এক লেভেল থেকে অন্য লেভেলে যেতে প্রয়োজন হবে পয়েন্টের। পয়েন্ট অর্জন করা যাবে বিভিন্ন বিকাশ সার্ভিস নিয়মিত ব্যবহার করে। অর্থাৎ বিকাশ অ্যাপ থেকে ক্যাশ ইন, ক্যাশ আউট, সেন্ড মানি, পে বিল, পেমেন্ট, ট্রান্সফার মানি, মোবাইল রিচার্জ ইত্যাদির মাধ্যমে বিকাশ রিওয়ার্ড পয়েন্ট পাওয়া যাবে। আর এসব পয়েন্টের মাধ্যমে পাওয়া যাবে ক্যাশব্যাক এর মতো আকর্ষণীয় অফার।

এভেইলএবেল পয়েন্ট নির্ধারিত হবে অর্জন করা পয়েন্ট থেকে খরচ করা পয়েন্টের পরিমাণকে বাদ দিয়ে। এই পয়েন্টগুলোই রিওয়ার্ড ক্লেইম করার ক্ষেত্রে ব্যবহার করা যাবে। প্রগেস বার এর সাহায্যে পরবর্তী লেভেলে যেতে কত পয়েন্ট লাগবে, তার ধারণা পাওয়া যাবে।

ডায়মন্ড ছাড়া অন্যসব লেভেলে প্রগেস বার ফুল হলে গ্রাহক পরবর্তী লেভেলে উন্নিত হবে। যেমনঃ সিলভার এ থাকা অবস্থায় প্রগেস বার ফুল হলে গ্রাহক পৌঁছে যাবেন টাইটেনিয়াম লেভেলে।

প্রগেস বার বিভিন্ন উপায়ে পূর্ণ হতে পারে। বিকাশ সার্ভিস নিয়মিত ব্যবহার, লেনদেনের পরিমাণ, লেনদেনের সংখ্যা ইত্যাদির উপর প্রগেস বার নির্ভর করে প্রগেস বার এর অগ্রগতি হবে। উল্লেখ্য যে, বিকাশ সার্ভিস ব্যবহার কমে গেলে প্রগেস বার কমে যেতে পারে।

অর্জিত রিওয়ার্ড পয়েন্ট এর কোনো থাকবে ১২ ক্যালেন্ডার মাস। অর্থাৎ বিকাশ রিওয়ার্ড পয়েন্ট ব্যবহারকারীর একাউন্টে ব্যবহার না করলে এই সময়সীমার পর অর্জিত পয়েন্ট চলে যাবে।

বিকাশ রিওয়ার্ড এর শর্তাবলী

বিকাশ রিওয়ার্ডস প্রোগ্রাম এ অংশগ্রণের ক্ষেত্রে কিছু শর্ত জুড়ে দিয়েছে বিকাশ কতৃপক্ষ। এই শর্তসমুহ হলোঃ 

  • রিওয়ার্ড পয়েন্ট কত দেয়া হবে তা বিকাশ নির্ধারণ করবে
  • ন্যূনতম অথবা সর্বাধিক লেনদেনের পরিমাণ এর উপর ভিত্তি করে রিওয়ার্ড পয়েন্ট কতো দেওয়া হবে, তা শুধুমাত্র বিকাশ নির্ধারণ করবে। তবে বিকাশ গ্রাহকের বিদ্যমান লেনদেনের লিমিটে রিওয়ার্ড প্রোগ্রাম কোনো প্রভাব ফেলবেনা
  • বিকাশ রিওয়ার্ড সংগ্রহ প্রক্রিয়া এবং অফারগুলো বিকাশই নিজে নির্ধারণ করবে
  • রিওয়ার্ড সিস্টেমের অপব্যবহার বা বেআইনি সুবিধা পাওয়ার জন্য সন্দেহজনক লেনদেনের যেকোনো প্রচেষ্টা তদারকি করা হবে এবং তদন্তের ভিত্তিতে সংশ্লিষ্ট গ্রাহককে বিকাশ সার্ভিস ব্যবহারে অযোগ্য ঘোষণা করা হবে
  • কোনোপ্রকার পূর্ব বিজ্ঞপ্তি ছাড়াই যেকোনো সময়ে বিকাশ রিওয়ার্ডস প্রোগ্রামের শর্তাবলী পরিবর্তন করতে পারে বিকাশ
  • কোনোপ্রকার পূর্ব বিজ্ঞপ্তি ছাড়াই যেকোনো সময় বিকাশ রিওয়ার্ডস প্রোগ্রাম সাময়িক স্থগিত বা সম্পূর্ণরূপে বন্ধ করার অধিকার সংরক্ষণ করে বিকাশ
  • বিকাশ রিওয়ার্ড প্রোগ্রামের যেকোনো বিষয়বস্তু অনুকরণ বা অবৈধ ব্যবহার / বিতরণ এর সাথে জড়িত ব্যক্তি(বর্গ) বা প্রতিষ্ঠান(গুলো) এর বিরুদ্ধে তাৎক্ষণিক আইনি পদক্ষেপ নেয়া হবে। আরও জানতে পারেন বিকাশের অফিসিয়াল ওয়েবপেজ থেকে

বিকাশ রিওয়ার্ড সম্পর্কে কিছু সচরাচর জিজ্ঞাসিত প্রশ্ন

বিকাশ রিওয়ার্ডের বিনিময়ে কি টাকা পাওয়া যাবে?

রিওয়ার্ড পয়েন্ট রিডিম করে অর্থাৎ পয়েন্ট ভাঙিয়ে/খরচ করে আপনি ক্যাশ ব্যাক পেতে পারেন। এই ক্যাশব্যাক আপনার বিকাশ একাউন্টেই চলে আসবে। আপনি চাইলে তা ক্যাশ আউট করতে পারবেন অথবা বিকাশের মাধ্যমে খরচ করতে পারবেন। সুতরাং বলা যায়, হ্যাঁ, আপনি বিকাশের এই রিওয়ার্ড পয়েন্টের বিনিময়ে টাকা পেতে পারেন।

রিওয়ার্ড পয়েন্টের মেয়াদ কতদিন থাকবে?

বর্তমানে বিকাশ রিওয়ার্ড পয়েন্টের মেয়াদ ১২ ক্যালেন্ডার মাস। অর্থাৎ এই সময়কালের মধ্যে আপনি চাইলে পয়েন্ট জমিয়ে তা পরবর্তীতে খরচ করার জন্য রেখে দিতে পারবেন। তবে বিকাশ চাইলে যেকোনো সময় এই মেয়াদে বা পুরো রিওয়ার্ড প্রোগ্রামেই পরিবর্তন আনতে পারে।

📌 পোস্টটি শেয়ার করুন! 🔥

সর্বশেষ প্রযুক্তি বিষয়ক তথ্য সরাসরি আপনার ইমেইলে পেতে ফ্রি সাবস্ক্রাইব করুন!

Join 8,575 other subscribers

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *