কেমন হল ভিভো ভি৩০ লাইট স্মার্টফোন?

সম্প্রতি এক জমকালো উন্মোচন অনুষ্ঠানের মধ্যে দিয়ে দেশের বাজারে মুক্তি পেলো ভিভো ভি৩০ লাইট ফোনটি। মিড রেঞ্জ বাজেটের এই ফোনটিতে কি কি রয়েছে সে সম্পর্কে জানবেন এই পোস্টে।

ভিভো ভি৩০ লাইট ফোনটিতে ইনোভেটিভ কালার-চেঞ্জিং গ্লাস ডিজাইন পাওয়া যাবে। এই ডিজাইন সূর্যের আলোর নিচে ব্যাকসাইড কালার পরিবর্তন করে। এই ব্যাক ডিজাইন ফোনটিকে ইউনিক লুক প্রদান করে থাকে। মেটালিক হাই-গ্লোস ফ্রেম রয়েছে এই ফোনে, ফোনটি পাওয়া যাবে ব্রিজ গ্রিন ও ক্রিস্টাল ব্ল্যাক কালারে।

ভিভো ভি৩০ লাইট ফোনটিতে কোয়ালকম স্ন্যাপড্রাগন ৬৮৫ প্রসেসর ব্যবহার করা হয়েছে। ৮ জিবি র‍্যাম ও ২৫৬ জিবি ইউএসবি ২.২ স্টোরেজ রয়েছে ফোনটিতে, ১ টেরাবাইট পর্যন্ত স্টোরেজ বাড়িয়ে নেওয়া যাবে এসডি কার্ড ব্যবহার করে। ফানটাচ ওএস ১৪ দ্বারা চলবে ভিভোর উক্ত নতুন ফোন।

ভিভো ভি৩০ লাইট ফোনটিতে ৬.৬৭ ইঞ্চি এমোলেড ডিসপ্লে রয়েছে। ৫০ মেগাপিক্সেল মেইন ক্যামেরার পাশাপাশি ৮ মেগাপিক্সেল আলট্রাওয়াইড ক্যামেরা ও একটি ২ মেগাপিক্সেল সেন্সর রয়েছে ফোনটির ব্যাকে। ফোনের ফ্রন্টে পেয়ে যাবেন ৮ মেগাপিক্সেল সেল্ফি ক্যামেরা। এছাড়া নাইট মোড, পোর্ট্রেইট মোড, লাইভ ফটো, ডকুমেন্ট মোড, স্লো-মো, টাইম-ল্যাপ্স, প্রো, ডুয়াল ভিউ, ইত্যাদি দরকারি ফিচার তো থাকছেই।

ভিভো ভি৩০ লাইট ফোনটির সবচেয়ে বড় চমক এর ব্যাটারি সেকশনে। ৫০০০ মিলিএম্প ব্যাটারির পাশাপাশি এই ফোনে রয়েছে ৮০ ওয়াট ফাস্ট চার্জিং সুবিধা। ইন-ডিসপ্লে ফিংগারপ্রিন্ট সেন্সর থাকছে এই ফোনে।

vivo v30 lite

৫ গিগাহার্জ ওয়াইফাই, ব্লুটুথ ৫.০, ইউএসবি ২.০, জিপিএস, ওটিজি, প্রক্সিমিটি সেন্সর, এম্বিয়েন্ট লাইট সেন্সর, ই-কম্পাস, জাইরোস্কোপ, ইত্যাদি গুরুত্বপূর্ণ টুল ও সেন্সর থাকছে ভিভো ভি৩০ লাইট ফোনটিতে।

ভিভো ভি৩০ লাইট ফোনটির বক্সে কুইক স্টার্ট গাইড, ইউএসবি ক্যাবল, চার্জার, ইজেক্ট টুল, ফোন কেস প্রটেকটিভ কেস (এপ্লাইড), ওয়ারেন্টি কার্ড পাওয়া যাবে। ভিভো ভি৩০ লাইট ফোনটি পাওয়া যাবে ৩২,৯৯৯ টাকা দামে।

📌 পোস্টটি শেয়ার করুন! 🔥

সর্বশেষ প্রযুক্তি বিষয়ক তথ্য সরাসরি আপনার ইমেইলে পেতে ফ্রি সাবস্ক্রাইব করুন!

Join 8,558 other subscribers

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *