সেরা ৫ ফ্রি এন্টিভাইরাস ২০২৩

সেরা ৫ ফ্রি এন্টিভাইরাস ২০২৩

বর্তমান সময়ে এসে কম্পিউটার ভাইরাস একটি আতঙ্কের নাম হয়ে গিয়েছে। এই প্রযুক্তির যুগে কম্পিউটার ছাড়া সারা পৃথিবী অচল। তাই কম্পিউটার ভাইরাস বয়ে এনেছে আরও বড় আতঙ্ক। গুরুত্বপূর্ণ ফাইল ডিলিট করে দেয়া থেকে শুরু করে আপনার নিজস্ব তথ্য পর্যন্ত হাতিয়ে নিতে পারে কম্পিউটার ভাইরাস। র‍্যানসমওয়্যার ও অন্যান্য বিভিন্ন ভাইরাস বর্তমানে বিভিন্ন বড় বড় প্রযুক্তি কোম্পানিগুলোরও মাথা ব্যথার কারন হয়ে দাঁড়িয়েছে। ভাইরাসগুলো দিনে দিনে আরও স্মার্ট হয়ে উঠছে, তাই সেই সাথে তাল মিলিয়ে নিজের তথ্য সুরক্ষিত রাখতে আপনাকেও স্মার্ট হয়ে উঠতে হবে। বিশেষ করে আপনি যদি ইন্টারনেট ব্যবহার করে থাকেন। আর এজন্যই আপনাকে সাহায্য করতে পারে এন্টিভাইরাস সফটওয়্যারগুলো। 

তবে বেশীরভাগ নামকরা সফটওয়্যারগুলোই পেইড হয়ে থাকে। ফলে অনেকে চাইলেও এতো টাকা খরচ করে এন্টিভাইরাস কিনতে পারেন না। এই পোস্টে আজকে আমরা পরিচয় করিয়ে দেব ৫ টি ফ্রি এন্টিভাইরাস সফটওয়্যারের সাথে যেগুলো ফ্রি হলেও আপনার পিসিকে সুরক্ষিত রাখতে যথেষ্ট ভালোভাবেই কাজ করে। যদিও পেইড এন্টিভাইরাস হতে কিছু ফিচার এসব ফ্রি এন্টিভাইরাসে কম থাকে, তবুও এরা সহজেই সাধারন ভাইরাসগুলোকে ডিটেক্ট করে আপনাকে সতর্ক করতে পারে এবং অনিরাপদ ফাইলগুলোকে ডিলিট করে আপনার সিস্টেমকে সুরক্ষিত রাখতে পারে।

উইন্ডোজ অপারেটিং সিস্টেম ব্যবহারকারীদের কাছে এন্টিভাইরাস বা এন্টিম্যালওয়্যার প্রোগ্রাম নতুন কোনো বিষয় নয়। আপনার কম্পিউটার যদি উইন্ডোজ ১০ অথবা উইন্ডোজ ১১ দ্বারা চালিত হয়, তাহলে তার মধ্যে মাইক্রোসফটের নিজস্ব ফ্রি এন্টিভাইরাস বা এন্টিম্যালওয়্যার প্রোগ্রাম, উইন্ডোজ ডিফেন্ডার দেয়া আছে।

উইন্ডোজ ডিফেন্ডার নিয়মিত আপডেট করলে বেশিরভাগ ভাইরাস বা ক্ষতিকর সফটওয়্যারের হাত থেকে সুরক্ষিত রাখতে পারবেন আপনার কম্পিটার। সেই সাথে চাইলে বাড়তি নিরাপত্তার জন্য অন্য একটি থার্ড পার্টি এন্টিভাইরাস সফটওয়্যারও ব্যবহার করতে পারেন। তার আগে জেনে নেওয়া যাক, এন্টিভাইরাসে কী কী ফিচার থাকা জরুরি।

এন্টিভাইরাস সমাচারঃ গুরুত্বপূর্ণ ফিচারসমূহ

উইন্ডোজ এর জন্য সেরা অ্যান্টিভাইরাস সফটওয়্যার খোঁজার ক্ষেত্রে দেখতে হবে যাতে এটি পিসিকে সুরক্ষিত রাখে, পরিমিত সিস্টেম রিসোর্স ব্যবহার করে, ব্যবহার করা সহজ হয় এবং প্রয়োজন ব্যতীত যাতে বিরক্তির উদ্রেক না করে। এই পোস্টে আমরা উইন্ডোজের জন্য সেরা কিছু এন্টিভাইরাসের সাথে পরিচিত হব। প্রথমেই একটি আদর্শ এন্টিভাইরাস সফটওয়্যারে যেসব বৈশিষ্ট্য থাকা উচিত তা নিম্নে আলোচিত হল।

কার্যকরিতাঃ অ্যান্টিভাইরাস জানা ভাইরাস এবং ম্যালওয়্যার (অর্থাৎ ক্ষতিকর প্রোগ্রাম) সনাক্ত করে, এবং সার্বক্ষণিক সুরক্ষা প্রদান করতে পারে। এমনকি এগুলো ক্ষতিকর ওয়েবসাইট এবং সন্দেহজনক লিঙ্কগুলোও খুঁজে বের করে আপনার কম্পিউটারকে সুরক্ষিত রাখে।

এন্টিভাইরাস সফটওয়্যারগুলো ক্ষতিকর প্রোগ্রামের বিরুদ্ধে সুরক্ষা সরবরাহ করতে পারে এবং অপ্রত্যাশিত আচরণ পর্যবেক্ষণ করে। এছাড়াও নতুন এবং এখনও সনাক্ত না হওয়া ভাইরাস এবং ম্যালওয়্যার খোঁজ করাও এন্টিভাইরাস এর কাজ। অতএব, বেছে নিন এমন একটি এন্টিভাইরাস সফটওয়্যার যা মিথ্যা সুরক্ষার প্রতিশ্রুতি না দিয়ে উক্ত সুবিধাসমূহ প্রদান করবে।

সিস্টেম রিসোর্স এর পরিমিত ব্যবহারঃ আপনি অবশ্যই এমন একটি অ্যান্টিভাইরাস চাইবেন যা আপনার পিসির রিসোর্স এ ঘাটতি তৈরি করবে না। অ্যান্টিভাইরাস ইনস্টল করার পর যদি ওয়েবসাইট ওপেন হতে সময় বেশি নেয়, ফাইল কপি করতে প্রত্যাশিত সময়ের বেশি সময় নেয়, তবে আপনার উচিত এর বিকল্প প্রোগ্রাম খোঁজ করা।

মূল্যঃ টাকা দিয়ে ক্রয় করলেই যে সেই এন্টিভাইরাস সফটওয়্যার আপনাকে যথাযথ সুরক্ষা দিবে এবং ফ্রি সফটওয়্যার কোনো কাজেরই না, সেটা সম্পূর্ণ ভুল ধারণা। আমাদের এই তালিকার প্রত্যেকটি এন্টিভাইরাসই বিনামূল্যে ব্যবহারযোগ্য, কিন্তু যথেষ্ট কার্যকর। আপনি যদি ব্যক্তিগত কম্পিউটারে এন্টিভাইরাস ইন্সটল করার জন্য এই পোস্টটির সাহায্য নিয়ে থাকেন, তবে তালিকার যেকোনো একটি এন্টিভাইরাস সফটওয়্যার ব্যবহার করে নিশ্চিন্ত থাকতে পারেন।

গোপনীয়তাঃ কম্পিউটারের সকল চলমান প্রসেস পর্যবেক্ষণ করাই একটি কার্যকর এন্টিভাইরাস সফটওয়্যার এর কাজ। তবে কম্পিউটারে চলমান এই সুরক্ষা ব্যবস্থার আড়ালে সফটওয়্যারটি ব্যবহার্য ডাটা অন্য কোম্পানির কাছে হাতবদল করছে কিনা, তাও নিশ্চিতকরণ জরুরি। এজন্য এন্টিভাইরাসের রিভিউ পড়ে নেওয়া জরুরি।

চলুন জেনে নিই বর্তমান সময়ের সেরা ৫ ফ্রি এন্টিভাইরাস সফটওয়্যার সম্পর্কে, যা থেকে আপনি যেকোনো একটি বেছে নিতে পারেন।

মাইক্রোসফট ডিফেন্ডার

মাইক্রোসফট ডিফেন্ডার

আপনি যদি উইন্ডোজ ব্যবহারকারী হন তাহলে উইন্ডোজ ১০ এবং ১১ তে ফ্রিতেই ডিফল্টভাবে মাইক্রোসফট ডিফেন্ডার পেয়ে যাবেন। এটি মাইক্রোসফটের নিজস্ব বিল্ট ইন এন্টিভাইরাস এবং উইন্ডোজে এটা ফ্রিতেই ব্যবহার করা যায়। মাইক্রোসফট ডিফেন্ডার খুব সহজ এবং সিম্পল একটি এন্টিভাইরাস প্রোগ্রাম যা নিজে থেকেই আপডেটেড থেকে আপনার পিসিকে সুরক্ষিত রাখে।

এতে ফায়ারওয়াল সুবিধা রয়েছে, ডিভাইসের বিভিন্ন সিকিউরিটি ইস্যু চেক করে আপনাকে জানাতেও এটি সক্ষম। সেইসাথে চাইলে যেকোনো ফাইল বা ফোল্ডার আপনি ম্যানুয়ালিও চেক করে দেখতে পারবেন। আপনি যদি অনিরাপদ জায়গা হতে কোন ফাইল না নামান বা নিজে হতে অনিরাপদ কোন কাজ না করে ফেলেন তাহলে উইন্ডোজ ডিফেন্ডার আপনাকে ভালোভাবেই সুরক্ষিত রাখতে পারবে। সেই সাথে এটি উইন্ডোজের সাথে খুব ভালোভাবে অপটিমাইজড বলে সিস্টেমের উপর আলাদা কোন প্রভাব ফেলে না।

আপনি যদি অন্য কোন থার্ড পার্টি এন্টিভাইরাস ইন্সটল করে থাকেন তবে মাইক্রোসফট ডিফেন্ডার একাই ডিজ্যাবল হয়ে যাবে। তাই এটি ব্যবহার করতে হলে আপনাকে অন্য এন্টিভাইরাস সফটওয়্যার মুছে ফেলতে হবে।

🔥🔥 গুগল নিউজে বাংলাটেক সাইট ফলো করতে এখানে ক্লিক করুন তারপর ফলো করুন 🔥🔥

বিট ডিফেন্ডার ফ্রি এন্টিভাইরাস

বিট ডিফেন্ডার ফ্রি এন্টিভাইরাস

দীর্ঘ সময় ধরে বিট ডিফেন্ডার এন্টিভাইরাস সফটওয়্যারের ক্ষেত্রে খুব বিশ্বস্ত একটি নাম। এটির পেইড ভার্সন থাকলেও ফ্রি ভার্সন একই প্রযুক্তি ব্যবহার করেই ব্যাসিক প্রোটেকশন দিতে পারে। এটি রিয়েল টাইমে আপনার ফাইলগুলোকে চেক করতে পারে এবং অনিরাপদ যেকোনো ফাইলকে নিজে থেকেই মুছে দিয়ে সিস্টেমকে সুরক্ষিত রাখতে পারে। পেইড ভার্সন হতে কিছু ফিচার ফ্রি ভার্সনে কম পেলেও এটি খুব সহজেই ভাইরাস ডিটেক্ট করতে পারে প্রিমিয়াম সফটওয়্যারের মতো করেই।

এটি খুব সহজ ও সিম্পল একটি সফটওয়্যার যা ইন্সটল করে নিলেই আপনি চিন্তামুক্ত থাকতে পারবেন। এটি খুব বেশি রিসোর্স ব্যবহার করে না বলে আপনার পিসিও ল্যাগ করবে না। তাছাড়া এর ফ্রি ভার্সনেই লাইভ কাস্টমার সাপোর্ট রয়েছে যা আর কোন ফ্রি এন্টিভাইরাসে নেই। যেকোনো সমস্যায় তাদের সাপোর্ট হতে সাহায্য পেয়ে যাবেন দ্রুত। ইন্সটল করতে সফটওয়্যারটি এখান থেকে ডাউনলোড করতে পারেন।

এভিরা ফ্রি সিকিউরিটি এন্টিভাইরাস

এভিরা ফ্রি সিকিউরিটি এন্টিভাইরাস

এন্টিভাইরাসের জগতে এভিরা খুব পরিচিত একটি নাম। প্রায় ৩৫ বছর ধরে তারা এন্টিভাইরাস সফটওয়্যার বানিয়ে আসছে আর তাই তাদের ভাইরাস ডিটেকশন ডাটাবেজও অনেক সমৃদ্ধ। এই এন্টিভাইরাসটিও অনেক হালকা, সিস্টেমে খুব বেশি প্রভাব ফেলে না। এছাড়া এতে রিয়েল টাইম প্রোটেকশনের পাশাপাশি কিছু আলাদা ফিচারও দেয়া আছে যার মধ্যে ড্রাইভার আপডেটার, সিস্টেম ক্লিনাপ, ডুপ্লিকেট ফাইন্ডার ইত্যাদি অন্যতম।

👉 উইন্ডোজের জন্য ফ্রি কিছু অ্যাপ যা আপনার কাজে লাগবে

ইন্টারনেট ব্রাউজিংয়ে প্রাইভেসি দিতে তাদের নিজেদের ভিপিএন দেয়া রয়েছে। এর ফায়ারওয়াল সিস্টেমও বেশ শক্তিশালী তাই হ্যাকারদের আপনার সিস্টেমের কন্ট্রোল নেয়া নিয়েও চিন্তামুক্ত থাকতে পারবেন সহজেই। ফ্রি এন্টিভাইরাস হিসেবে এটি একটি শক্তিশালী ও ফিচার রিচ এন্টিভাইরাস। এই লিংক থেকে ডাউনলোড করে নিন এই এন্টিভাইরাসটি।

এভিজি এন্টিভাইরাস ফ্রি

এভিজি এন্টিভাইরাস ফ্রি

এভিজিও এন্টিভাইরাসের দুনিয়াতে খুব জনপ্রিয় ও পুরনো একটি নাম। ৩০ বছরের বেশি সময় ধরে তারা সিকিউরিটি সফটওয়্যার তৈরি করছে। তাদের ফ্রি এন্টিভাইরাসটিও বেশ জনপ্রিয়। ৬ টি লেয়ারের সিকিউরিটি ব্যবস্থা দেয়া আছে তাদের ফ্রি এন্টিভাইরাসে। ম্যালওয়্যার প্রোটেকশনের পাশাপাশি এটি আপনাকে অনিরাপদ ইমেইল সম্পর্কে অবহিত করে তা ব্লক করে দিতে পারে। এছাড়া রিয়েল টাইমে প্রোটেকশন, ফিশিং প্রোটেকশনও দিতে সক্ষম এটি। ওয়েবক্যাম প্রোটেকশন দেবার মাধ্যমে এটি আপনার প্রাইভেসি রক্ষা করতেও বেশ কার্যকরী। এর ফায়ারওয়াল হ্যাকারদের এটাক রুখে দিতে সক্ষম। এখান থেকে ডাউনলোড করে নিতে পারেন এই ফ্রি এন্টিভাইরাসটি।

অ্যাভাস্ট ওয়ান এসেন্সিয়াল

অ্যাভাস্ট ওয়ান এসেন্সিয়াল

অ্যাভাস্ট সম্ভবত ফ্রি এন্টিভাইরাস হিসেবে সবথেকে জনপ্রিয় একটি নাম। দীর্ঘদিন ধরে তারা ফ্রি এন্টিভাইরাস সফটওয়্যার তৈরি করে আসছে এবং ভাইরাস ডিটেকশনে তারা অত্যন্ত শক্তিশালী। তবে তাদেরকে এই লিস্টের শেষে রাখবার কারন তাদের বিরুদ্ধে ব্যবহারকারীদের ডাটা সংগ্রহ করে রাখার অভিযোগ রয়েছে। অন্য এন্টিভাইরাসের মতোই এটিও রিয়েল টাইমে ম্যালওয়ারের বিরুদ্ধে সুরক্ষা দিতে পারে। ফ্রি ভিপিএন আছে তাদের এই ফ্রি সফটওয়্যারে নিরাপদ ব্রাউজিংয়ের জন্য। এছাড়া ইমেইল প্রোটেকশন, হ্যাকারদের বিরুদ্ধে প্রোটেকশন দিতে পারে এটি। সিস্টেম স্পিড আপ করতে বেশ কিছু ফিচারও দেয়া আছে এতে। ডাউনলোড করে নিতে পারেন এখান থেকে

👉 গেমিং পিসি কেনার সময় যা খেয়াল রাখা দরকার

সঠিকভাবে এন্টিভাইরাস বা এন্টিম্যালওয়্যার সফটওয়্যার ব্যবহার করলে বিভিন্ন ভাইরাস, ম্যালওয়্যার ও র‍্যানসমওয়্যারের হাত থেকে আপনার ব্যবহার্য কম্পিউটারটিকে নিরাপদে রাখা সম্ভব। কম্পিউটারে যেকোনো সফটওয়্যার ইনস্টল করার পূর্বে অবশ্যই এর উৎস ও নির্মাতা সম্পর্কে ভালোভাবে নিশ্চিত হয়ে নিন।

সফটওয়্যারের ক্র্যাক ইন্সটল করা থেকে বিরত থাকুন। অধিকাংশ ক্র‍্যাকড সফটওয়্যার এর ইন্সটলেশন প্যাকেজে ভাইরাস ও ম্যালওয়্যার থাকে।

📌 পোস্টটি শেয়ার করুন! 🔥

সর্বশেষ প্রযুক্তি বিষয়ক তথ্য সরাসরি আপনার ইমেইলে পেতে ফ্রি সাবস্ক্রাইব করুন!

Join 8,555 other subscribers

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *