এবার হ্যাকিংয়ের শিকার হল সোনালী ব্যাংকঃ ২ কোটি টাকা উধাও!

Moneyএনালগ পদ্ধতিতে ঋণখেলাপ ও সিঁদেল চুরির মত হতাশাজনক পরিস্থিতির পর এবার ডিজিটাল জালিয়াতি বা ‘হ্যাকিং’ এর শিকার হয়েছে সোনালী ব্যাংক লিমিটেড। ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠান বিভাগের সচিব এম আসলাম আলম শনিবার এই তথ্য প্রকাশ করেছেন। তিনি বলেন, বাংলাদেশের সর্ববৃহত রাষ্ট্রায়ত্ব এই বাণিজ্যিক ব্যাংক থেকে গত বছর ২.৫ লাখ ইউএস ডলার ক্ষতি হয়েছে।

“গত বছর ব্যাংকটির একটি হিসাবের পাসওয়ার্ড হ্যাকিংয়ের মাধ্যমে একটি ট্রান্সজেকশনে আড়াই লাখ ইউএস ডলার ক্ষতি হয়েছে।”

“এ থেকে বোঝা যাচ্ছে, ব্যাংকটির পাসওয়ার্ড ম্যানেজমেন্টে বিরাট ঘাটতি রয়ে গেছে। ঝুঁকি ব্যবস্থাপনা বলতে কিছুই নেই ব্যাংকটির” বলেন আসলাম আলম।

সোনালী ব্যাংকের সিক্যুরিটি সিস্টেমে দুর্বলতার কথা তুলে ধরতে গিয়ে সচিব সাম্প্রতিক সময়ে আলোচিত কিশোরগঞ্জের সিঁদেল চুরির ঘটনাটিও তুলে ধরেন।

“কিশোরগঞ্জে ব্যাংকের শাখায় সুড়ঙ্গ কেটে চুরির যে ঘটনা ঘটেছে, এর আগে বিষয়টি নিয়ে কেউ মাথা ঘামায়নি। ৫ মে রাতে হেফাজতের তাণ্ডবের সময় সোনালী ব্যাংকের ভেতরে হাজার হাজার লোক ঢুকে পড়েছিল। কিন্তু এর কোনো ভিডিও ফুটেজ সোনালী ব্যাংক সংরক্ষণ করতে পারেনি।”

সচিব আসলাম আলম এসময় প্রতিষ্ঠানটির অনলাইন/অফলাইন সব ধরণের নিরাপত্তা ব্যবস্থা শক্তিশালী করার ওপর গুরুত্ব আরোপ করেন।

রাজধানীর সোনারগাঁও হোটেলে আজ ব্যাংকের বার্ষিক সম্মেলনে সচিব যখন এই তথ্য দেন, তখন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিতও উপস্থিত ছিলেন।

অর্থমন্ত্রী বলেন “ব্যাংকের প্রতি সকলের আস্থা-বিশ্বাস রাখতে হলে অভ্যন্তরীণ নিয়ন্ত্রণ ব্যবস্থা শক্তিশালী করতে হবে। ২০১২ সালে হল-মার্ক ঘটনার পর ব্যাংকটি যে বিপদে পড়ল, সেই বিপদ কিন্তু এখনো পুরোপুরি কাটিয়ে উঠতে পারেনি। সেই বিপর্যয়ের কারণ ছিল কিন্তু একান্তই অভ্যন্তরীন নিয়ন্ত্রণ ব্যবস্থার দুর্বলতা।”

সর্বশেষ প্রযুক্তি বিষয়ক তথ্য সরাসরি আপনার ইমেইলে পেতে ফ্রি সাবস্ক্রাইব করুন!

Join 4,245 other subscribers

Comments