‘বিশ্বের সবচেয়ে সস্তা’ স্মার্টফোন নিয়ে তুমুল সমালোচনা

freedom-251 img1

ভারতে গত ১৭ ফেব্রুয়ারি বিক্রি শুরু হয়েছে ফ্রিডম ২৫১ নামের এন্ড্রয়েড স্মার্টফোন। ভারত সরকারের সহায়তা নিয়ে স্থানীয় একটি কোম্পানি মাত্র ২৫১ রূপি দামে ৪ ইঞ্চি স্ক্রিনের এই ফোনটি লঞ্চ করে। যদিও এই ফোনটির প্রকৃত খরচ ৩ হাজার রূপির মত, কিন্তু ভর্তুকি থাকায় ৪ ডলার বা বাংলাদেশী মুদ্রায় মাত্র ২৮৮ টাকায় পুরো একটি এন্ড্রয়েড স্মার্টফোন বাজারে আনার ঘোষণা দেয় ভারতীয় কোম্পানি রিংঙ্গি বেলস। তখন থেকেই ব্যাপক কৌতূহল সৃষ্টি করে ডিভাইসটি। কিন্তু তখন কে জানত যে ফ্রিডম ২৫১ ফোনটি এভাবে সমালোচনার জন্ম দেবে।

তবে এই ফোনের ভর্তুকি ভারত সরকার দিয়েছে নাকি কোম্পানি নিজেই দিয়েছে সেটা এখনও পুরোপুরি স্পষ্ট নয়। অবশ্য বিবিসি লিখছে, রিঙ্গি বেলস সরকারি ভর্তুকির কথা নাকচ করে দিয়েছে। এর আগে সংবাদ মাধ্যমের প্রতিবেদনে দেখা গেছে, কোম্পানিটি সরকারি সহায়তার কথা উল্লেখ করেছে।

 

এটি আসলে চায়নিজ ফোন যার লোগো রঙ দিয়ে ঢেকে দেয়া হয়েছে!

ভারতীয় বেশ কিছু পত্রিকা, ব্যবহারকারী ও অনলাইন টেক মিডিয়া থেকে যতটা জানা যাচ্ছে, ফ্রিডম ২৫১ ফোনটি আসলে ভারতে তৈরি হয়নি। এটি মূলত চায়নিজ স্মার্টফোন, যেটি কভারে ঢেকে দেয়া হয়েছে। ফোনটির স্ক্রিনের উপর দিকে ফোনটির আসল নির্মাতা কোম্পানি ‘অ্যাডকম’ এর নাম সাদা রঙ লাগিয়ে ঢেকে দেয়া হয়েছে বলে অভিযোগ করেছেন ব্যবহারকারীরা।

freedom-251 twtr

তারা টুইটারে এর প্রমাণস্বরূপ ছবিও পোস্ট করেছেন

 

ফোনটির মূল চেহারা নিয়ে বিভ্রান্তি

freedom-251

ফ্রিডম ২৫১ ফোনটি এর নির্মাতা কোম্পানির ওয়েবসাইটে যে মডেলের দেখানো হয়েছে, পত্রিকার বিজ্ঞাপনে ও বাস্তবে ডিভাইসটির ভিন্ন রূপ দেখা গেছে। অবশ্য লঞ্চ করার পর আসল ডিভাইসের ছবিই দেখা গেছে ওয়েবসাইটে।

freedom 251 image real

 

আইফোনের মডেল অনুকরণ

ফ্রিডম ২৫১ ফোনটি দেখতে কিছুটা আইফোনের মত। এতে গোলাকার হোম বাটন রয়েছে যে কারণে লোকজন এটা নিয়ে সমালোচনা করেছে।

 

সার্ভার ডাউন

ফ্রিডম ২৫১ লঞ্চ করার পর এটি শুধুমাত্র কোম্পানির ওয়েবসাইটের মাধ্যমেই অর্ডার করা যাচ্ছিল। ফলস্বরূপ সেকেন্ডে প্রায় ৬ লাখ ভিজিটর আসা শুরু করে সাইটটিতে যা শেষ পর্যন্ত সাইট অফলাইনে নিয়ে যায়। ২০ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত প্রাপ্ত তথ্যানুযায়ী, ৩০ হাজার হ্যান্ডসেট বিক্রি করেছে কোম্পানিটি।

ফ্রিডম ২৫১ ডিভাইসটিতে রয়েছে ৪ ইঞ্চি (৫৪০ x ৯৬০পি) স্ক্রিন, ১.৩ গিগাহার্টজ কোয়াডকোর প্রসেসর, ৩.২ মেগাপিক্সেল মূল ক্যামেরা, ০.৩ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরা, ৮জিবি স্টোরেজ, ১জিবি র‍্যাম, মাইক্রোএসডি কার্ড সাপোর্ট, ওয়াইফাই, প্রক্সিমিটি সেন্সর, এন্ড্রয়েড ৫.১ ওএস প্রভৃতি।

এই জিএসএম ফোনটিতে কোনো ফ্ল্যাশ নেই। জিপিএস ও ফোরজি সাপোর্টও নেই। অবশ্য থ্রিজি ও ব্লুটুথ সাপোর্ট আছে।

 

📌 পোস্টটি শেয়ার করুন! 🔥

সর্বশেষ প্রযুক্তি বিষয়ক তথ্য সরাসরি আপনার ইমেইলে পেতে ফ্রি সাবস্ক্রাইব করুন!

Join 8,572 other subscribers

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *