বন্ধ হয়ে গেল “লিবার্টি রিসার্ভ”

Liberty Reserveকোস্টা রিকা ভিত্তিক অনলাইন কারেন্সি সার্ভিস “লিবার্টি রিসার্ভ” বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। সেন্ট্রাল অ্যামেরিকার ঐ দেশটির কর্তৃপক্ষ বলছে গ্রেফতারের পর সাইটটির প্রতিষ্ঠাতা আর্থার বিউদভস্কি’কে মানি লন্ডারিং কার্যকলাপের সাথে জড়িত থাকার সন্দেহে স্পেনের কারাগারে নেয়া হয়েছে। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রও ঐ তদন্তে যুক্ত ছিল। সূত্র আরও জানাচ্ছে, পুলিশ মিঃ বিউদভস্কির বেশ কিছু সম্পদের ওপর অতর্কিত হানা দিয়েছে এবং তার কম্পিউটার সার্ভিস দখল করে নিয়েছে।

লিবার্টি রিসার্ভের ওয়েবসাইটটি গত বৃহস্পতিবার থেকে অফলাইনে চলে গেছে। এরা নিজেদেরকে “ইন্টারনেটের সবচেয়ে প্রাচীন, অধিক নিরাপদ ও জনপ্রিয়তম পেমেন্ট প্রসেসর হিসেবে দাবি করে আসছিল যা বিশ্বব্যাপী মিলিয়ন মিলিয়ন ব্যবহারকারীদের সেবা দিচ্ছিল”;

সাইটটি শুধুমাত্র গ্রাহকের নাম, জন্মতারিখ এবং ইমেইল ঠিকানা গ্রহণের মাধ্যমেই একাউন্ট খোলা এবং অতঃপর অর্থ স্থানান্তরের সুবিধা দিত। লিবার্টি রিসার্ভ একাউন্টে ক্রেডিট কার্ড, ব্যাংক ওয়াইর, পোস্টাল মানি অর্ডার এবং অন্যান্য কারেন্সি ট্র্যান্সফার সার্ভিস থেকে ব্যাল্যান্স যোগ করা যেত। এরপর এগুলো লিবার্টি রিসার্ভের নিজস্ব মুদ্রায় কনভার্ট হলেও তা ডলার কিংবা ইউরো এককে প্রকাশ পেত। এসব কারেন্সি সাইটটির সদস্যরা নিজেদের মধ্যে আদান-প্রদান এবং নগদ অর্থে রূপান্তর করতে পারত।

লিবার্টি রিসার্ভ প্রতিটি লেনদেনে সর্বোচ্চ ২.৯৯ ডলার ফি চার্জ করত। এতে একটি প্রাইভেট মেসেজিং সিস্টেমও চালু ছিল।

একাউন্ট খোলা থেকে শুরু করে মানি ট্র্যান্সফার পর্যন্ত লিবার্টি রিসার্ভে খুব বেশি তথ্য প্রয়োজন না হওয়ায় এবং এর কম ফি’র কারনে সাইটটি বেশ জনপ্রিয় হয়ে ওঠে। কোন কোন নিরাপত্তা বিশেষজ্ঞের মতে অনেক সাইবারক্রিমিনালরাই এর সুযোগগুলো গ্রহণ করত।

সর্বশেষ প্রযুক্তি বিষয়ক তথ্য সরাসরি আপনার ইমেইলে পেতে ফ্রি সাবস্ক্রাইব করুন!

Join 7,628 other subscribers

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.