এন্ড্রয়েড Q এর নতুন ফিচার ফাঁস

এন্ড্রয়েড Q

এন্ড্রয়েডের লেটেস্ট ভার্সন এন্ড্রয়েড ৯.০ পাই গতবছর আগস্টে রিলিজ হয়েছে। ইতোমধ্যে বিভিন্ন ওইএম (অরিজিনাল ইকুইপমেন্ট ম্যানুফ্যাকচারার) তাদের ডিভাইসগুলোতে এন্ড্রয়েড পাই বিতরণ করা শুরু করে দিয়েছে। তবে সব ডিভাইসে পাই আসার আগেই শোনা যাচ্ছে এন্ড্রয়েড কিউ এর গুঞ্জন। যেহেতু এন্ড্রয়েডের ভার্সনগুলোর নাম ইংরেজি বর্ণের ক্রমানুযায়ী হয়, তাই পরবর্তী ভার্সনের নাম এন্ড্রয়েড Q এর কাছাকাছি কিছু হবে এ কথা ধরেই নেয়া যায়।

মাত্র কয়েকদিন আগেই এন্ড্রয়েড ডেভেলপারদের জনপ্রিয় ফোরাম এক্সডিএ’তে গুগলের পরবর্তী এন্ড্রয়েড ফ্লেভার এন্ড্রয়েড কিউ এর একটি প্রাথমিক বিল্ড এর কিছু ফিচার নিয়ে তথ্য প্রকাশিত হয়েছে। যেহেতু এটা প্রথমদিককার বিল্ড তাই এটাতে খুব বেশি পরিবর্তন বা ফিচার দেখা যায়নি।

এবছরের শেষ দিকে গুগল তাদের এন্ড্রয়েড কিউ এর চূড়ান্ত বিল্ড রিলিজ করবে বলে আশা করা হচ্ছে। চূড়ান্ত বিল্ডে অনেক পরিবর্তন দেখা যাওয়াটাই স্বাভাবিক। তবে আপাতত প্রাথমিক এই বিল্ডটির দুটি বড় পরিবর্তন নিয়ে আলোচনা করা যাক। এখানে ছবিগুলো এক্সডিএ ডেভেলপারস ফোরামের ভিডিও থেকে স্ক্রিনশট হিসেবে নেয়া হয়েছে।

এন্ড্রয়েড Q এ অ্যাপ পারমিশনে ব্যবহারকারীর আরো বেশি নিয়ন্ত্রণ থাকবে

এন্ড্রয়েড কিউ তে আপনি খুব সহজেই কোন কোন অ্যাপ আপনার পার্সোনাল ডেটা দেখার অনুমতি পাচ্ছে সেটা জানতে পারবেন। আরেকটি ব্যাপার হলো, এতে আপনি চাইলেই কোনো একটি অ্যাপের জন্য কোনো একটি নির্দিষ্ট পারমিশনের ব্যাপ্তিকাল/মেয়াদ নির্ধারণ করে দিতে পারবেন।

উদাহরণস্বরূপ, আপনার গুগল ম্যাপ অ্যাপটি আপনার লোকেশন ডেটা কি শুধুমাত্র অ্যাপটি চলাকালীন, নাকি সর্বক্ষণ ব্যবহার করবে তা নির্ধারণ করে দিতে পারবেন।

এন্ড্রয়েড Q

আগের ভার্সনগুলোতে এটা নিয়ন্ত্রণের এরকম কোনো ব্যবস্থা ছিলনা।

সবধরনের অ্যাপে সব ধরনের পারমিশনের ক্ষেত্রেই এই সুবিধা পাওয়া যাবে বলে মনে হচ্ছে। আরো একটি সুবিধা হচ্ছে, এর জন্য আপনাকে কষ্ট করে সেটিংস অপশনে যেতে হবেনা। বরং অ্যাপগুলো প্রথমবার চালু করার সময়ই আপনাকে পারমিশন আস্ক করার সময় মেন্যুতে তিন ধরনের অপশন দেখাবে।

এন্ড্রয়েড কিউ

নতুন এই ফিচারের কল্যাণে আপনি এন্ড্রয়েড Q এর নোটিফিকেশন প্যানেলের উপরে ঐ মুহূর্তে কয়টা অ্যাপ আপনার লোকেশন, মাইক্রোফোন বা ক্যামেরা ব্যবহার করছে তা ছোট আইকনের মাধ্যমে দেখাবে।

এন্ড্রয়েড কিউ

এন্ড্রয়েড Q এর ঐ ছোট আইকনে ক্লিক করলে সেটি আবার অ্যাপগুলোর নাম ও আইকন সম্বলিত তালিকা দেখাবে যেন আপনি দরকার মতো অ্যাপ এ ক্লিক করে সেটার পারমিশন পুনরায় বিবেচনা করতে পারেন।

তাছাড়া আপনি এন্ড্রয়েড Q এর সেটিংস অ্যাপে একটি সেকশন পাবেন যেখানে কোন কোন পারমিশন কয়টা অ্যাপ ব্যবহার করছে তার সারসংক্ষেপ হিসেবে একটি ইনফোগ্রাফিক থাকবে।

এন্ড্রয়েড কিউ

এন্ড্রয়েড Q এ আসছে উন্নততর ডার্ক মুড

অ্যামোলেড ডিসপ্লের কল্যাণে ব্যাটারি বা চোখ বাঁচাতে অনেকেই ফোনে ডার্ক ওয়ালপেপার বা থিম ব্যবহার করেন। এন্ড্রয়েড বেইজড বিভিন্ন কাস্টম রমে ডার্ক মোড ফিচার থাকলেও ডিফল্টভাবে এন্ড্রয়েডে ডার্ক মোড খুব বেশি দিন হয়নি। এন্ড্রয়েড পাই ওএসে ডার্ক মোড এসেছে।

কিউ তে গুগল সেই কাঙ্ক্ষিত ডার্ক মোড আরও উন্নতরূপে নিয়ে আসছে যা পুরো অপারেটিং সিস্টেমজুড়েই কার্যকর থাকবে। সম্প্রতি গুগল তাদের জনপ্রিয় অ্যাপগুলোতেও আস্তে আস্তে ডার্ক মোড যুক্ত করা শুরু করেছে।

এন্ড্রয়েড Q

যেহেতু এটি কোনো পরিপূর্ণ বিল্ড নয় তাই এখনো পুরো সিস্টেমজুড়ে গুগল এই ডার্কমোড ইমপ্লিমেন্ট করতে পারেনি।

তবে আশা করা যায় অফিশিয়াল রিলিজের সময় সম্পূর্ণ ডার্ক মোড নিয়েই আসবে এন্ড্রয়েড কিউ।

তো এন্ড্রয়েড কিউ এর নতুন ফিচার নিয়ে আপনার কী অভিমত?

কমেন্টে জানান!

সর্বশেষ প্রযুক্তি বিষয়ক তথ্য সরাসরি আপনার ইমেইলে পেতে ফ্রি সাবস্ক্রাইব করুন!

Join 3,283 other subscribers

Comments