এন্ড্রয়েড নেতৃত্বে পরিবর্তন আনছে গুগলঃ কী অপেক্ষা করছে ভবিষ্যতে?

androidiu7yilyhuএন্ড্রয়েডের বর্তমান মালিক গুগল তাদের মোবাইল ওএস ডিভিশন থেকে সফটওয়্যারটির অন্যতম প্রধান উদ্যোক্তা অ্যান্ডি রুবিনকে সরিয়ে দিচ্ছে (অথবা স্বেচ্ছায় পদত্যাগও হতে পারে); এন্ড্রয়েড কোম্পানিকে কিনে নেয়ার পর গুগলের অধীনেও অ্যান্ডি রুবিন ছিলেন এর প্রধান। কিন্তু অপারেটিং সিস্টেমটিকে “আরও সামনের দিকে” এগিয়ে নেয়ার লক্ষ্যে গৃহীত উক্ত রদবদলের কথা জানিয়েছেন গুগল সিইও ল্যারি পেজ। অথবা এন্ড্রয়েডে “উল্লেখযোগ্য” পরিবর্তন আসার সম্ভাবনা থাকায় হয়ত নিজেই পথ থেকে সরে দাঁড়াতে চাইছেন অ্যান্ডি। কিন্তু কি ঘটতে যাচ্ছে বহুল ব্যবহৃত এই মোবাইল ওএসের ভাগ্যে?

মিঃ রুবিনেরর স্থলাভিষিক্ত হবেন ক্রোম ব্রাউজার নির্মাণে নেতৃত্ব দেয়া সুন্দর পিচাই। অ্যাপল আইওএস প্ল্যাটফর্মে গুগল এপস এবং ডেস্কটপ ক্রোম অপারেটিং সিস্টেম ডেভলপেও গুরুত্বপূর্ণ ভুমিকা রাখেন তিনি। কিন্তু এর সাথে এন্ড্রয়েডের যোগসূত্র কী?

মনে আছে হয়ত, কিছুদিন আগে একজন গুগল কর্মকর্তা ক্রোম অপারেটিং সিস্টেমকে “ভবিষ্যৎ কম্পিউটারের এন্ড্রয়েড” হিসেবে গড়ে তুলতে আশা প্রকাশ করেন। ওয়েব নির্ভর এই কম্পিউটার ওএস এখনও তেমন কোন জনপ্রিয়তা অর্জন করতে পারেনি। এন্ড্রয়েড এবং ক্রোম অপারেটিং সিস্টেমের মাঝে অনেক পার্থক্য। কিন্তু একটি জায়গায় উভয় সফটওয়্যারের সেতুবন্ধন আছে। আর সেটি হচ্ছে – লিনাক্স।

হ্যাঁ, দুটি প্ল্যাটফর্মই লিনাক্স ভিত্তিক এবং এদের মাঝে যোগসূত্র স্থাপন করা গুগলের জন্য কঠিন কোন কাজ হওয়ার কথা নয়। তবে শীঘ্রই এটি চোখে না পরলেও চার-পাঁচ বছরের মধ্যে এরকম কিছু ঘটার সম্ভাবনা উড়িয়ে দেয়া যায়না।

অ্যাপল তাদের ম্যাক ওএস এক্স লায়ন থেকে মাউন্টেন লায়নের মাধ্যমে “ডেস্কটপে আইওএস” নিয়ে এসেছিল। মাইক্রোসফটও সেই একই পথে হেঁটেছে। উইন্ডোজ এইট পিসি অপারেটিং সিস্টেম এবং কোম্পানিটির উইন্ডোজ মোবাইল প্ল্যাটফর্মেও বেশ কিছু কমন কোড ব্যবহার করা হয়েছে। অপরদিকে ক্যানোনিকাল তাদের উবুন্তু নিয়েও প্রায় সমানতালে মোবাইল ও কম্পিউটারের দিকে ধাবিত হচ্ছে।

সুতরাং গুগল কেন পিছিয়ে থাকবে? হয়ত এজন্যই এন্ড্রয়েডকে হাতিয়ার হিসেবে নিচ্ছে এই সার্চ জায়ান্ট।

সবাই জানেন, এন্ড্রয়েড একটি ওপেন সোর্স এবং ফ্রি অপারেটিং সিস্টেম। কিন্তু গুগল এর ওপর কি পরিমাণ নিয়ন্ত্রণ রাখে তার নমুনা এর প্লে স্টোরে অ্যাড ব্লকিং এপ্লিকেশন ব্যানের হার দেখলেই অনুভব করা যায়। ফ্রি এন্ড্রয়েডে বিজ্ঞাপন দেখিয়ে যে নগদ অর্থযোগ হবে গুগলের সেই পথে বাধা হয়ে দাঁড়ায় এমন সাধ্য কার?

সুন্দর পিচাইয়ের নেতৃত্বে সফটওয়্যারটিতে আরও বেশি পরিবর্তন আনতে পারবে গুগল। ডিফল্ট এন্ড্রয়েড ব্রাউজার ক্রোমের চেয়ে কম ইউজার ডেটা সংগ্রহ করে। আর এজন্য গুগল চাইলেও অ্যান্ডি রুবিন একে ডিফল্ট হিসেবে দেখতে পছন্দ করতেন না। কিন্তু এখন যেহেতু রুবিন নেই, সুতরাং পিচাইয়ের তত্বাবধানে এন্ড্রয়েডে সহজেই এসব সম্ভব হবে।

মটোরোলা মবিলিটির পেটেন্ট স্বপ্নে বিভোর গুগল ঘুম ভেঙে এখন পর্যন্ত মোটামুটি “যেই লাউ সেই কদু” অবস্থায় আছে। নিজস্ব এন্ড্রয়েড ডিভাইস স্যামসাংয়ের গ্যালাক্সি পণ্যের কাছে কার্যতঃ মাথা তুলেই দাঁড়াতে পারেনি। এদিকে মটোরোলার যে পেটেন্ট পোর্টফোলিও গুগল কিনে নিয়েছে তার মধ্যে বেশ কিছু রয়েছে স্ট্যান্ডার্ড এসেনশিয়াল গোত্রের যা অন্য যে কেউ যুক্তিসঙ্গত লাইসেন্স ফি দিয়ে ব্যবহার করতে পারে। সুতরাং মটোরোলা থেকে খুব বেশি লাভ ঘরে তুলতে গুগলকে আরও অপেক্ষা করতে হবে- আদৌ কতটা পারবে সেটিও অবশ্য ভাবনার বিষয়। ইতোমধ্যে এন্ড্রয়েডকে কীভাবে আরও “অর্থকরী” হিসেবে গড়ে তোলা যায় ওয়েব কোম্পানিটি এখন মূলত সেই উপায় খুঁজছে। আর সুন্দর পিচাইকে দিয়েই এর শুরুটা রচিত হল।

নতুন নেতৃত্বে এন্ড্রয়েডে কী কী পরিবর্তন আনতে পারে গুগল? আপনার কী মনে হয়?

সর্বশেষ প্রযুক্তি বিষয়ক তথ্য সরাসরি আপনার ইমেইলে পেতে ফ্রি সাবস্ক্রাইব করুন!

Join 3,163 other subscribers

Comments