Advertisements

ফিঙ্গারপ্রিন্টযুক্ত নতুন আইফোন ৫এস এবং রঙিন আইফোন ৫সি আনছে অ্যাপল!

By -

১০ সেপ্টেম্বর ক্যালিফোর্নিয়ায় আয়োজিত এক ইভেন্টে নতুন দুই মডেলের আইফোন বাজারে আনার ঘোষণা দিয়েছে অ্যাপল। আইফোন ফাইভ এস এবং ফাইভ সি হচ্ছে কোম্পানিটির লেটেস্ট স্মার্টফোন রেঞ্জ। গতরাতের ঐ ইভেন্টে বহুদিন ধরে গুজবরত স্মার্টওয়াচ কিংবা আইপ্যাড মিনির নতুন কোন সংস্করণ প্রকাশ করেনি টেক জায়ান্ট। তবে আইওএস ৭ চালিত আইফোনের সর্বশেষ এই দুই ভার্সনে বেশ কিছু চমৎকার ফিচার রয়েছে যা আপনি পছন্দ করতে বাধ্য হবেন। চলুন দেখে নিই কী কী রয়েছে অ্যাপলের এই জোড়া স্মার্টফোনে।

আইফোন ৫এস

সর্বশেষ প্রযুক্তি বিষয়ক তথ্য সরাসরি আপনার ইমেইলে পেতে ফ্রি সাবস্ক্রাইব করুন!

Join 1,184 other subscribers

iPhone 5s image.........টিম কুকের নেতৃত্বাধীন মার্কিন প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠান অ্যাপলের সর্বশেষ ফ্ল্যাগশিপ স্মার্টফোন হচ্ছে আইফোন ফাইভ এস। এটি আইওএস ৭ অপারেটিং সিস্টেমে চলবে এবং দেখতে প্রায় আইফোন ৫ এর মতই হবে। সচরাচর আইফোন কালারের সাথে এর নতুন “স্পেস গ্রে” এবং “গোল্ড” এডিশন পাওয়া যাবে। স্মার্টফোনটির হোম বাটনের সাথে একটি ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর যুক্ত থাকবে যা “টাচ আইডি”র মাধ্যমে আপনার আঙুলের ছাপ ব্যবহার করে দ্রুত ফোন আনলক এবং আইটিউনস অ্যাপ স্টোরে সহজ এক্সেস দেবে।

ডিভাইসটিতে থাকছে ৪ ইঞ্চি (১১৩৬ x ৬৪০পি, ৩২৬পিপিআই) আইপিএস টাচস্ক্রিন, ফোরজি, ৮ মেগাপিক্সেল ব্যাক-১.২ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরা, অ্যাপল এ৭ প্রসেসর, আইওএস ৭ প্রভৃতি।

iphone 5s ...আইফোন ৫এস এর হোম বাটন ঘিরে যে ক্যাপাসিটিভ রিং রয়েছে সেটিই ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর এক্টিভেট করবে। এতে আপনি একাধিক ব্যবহারকারীর আঙ্গুলের ছাপ সংরক্ষণ করতে পারবেন, যাতে পরিবারের অন্যান্য সদস্যরাও ডিভাইসটি আনলক করতে পারে।

আপনার মহামূল্যবান ফিঙ্গারপ্রিন্ট ডেটা আইফোনের স্বয়ং এ৭ চিপের মধ্যে (লোকালি) সংরক্ষিত থাকে। এই ফিচারটি কোন অ্যাপে উপলভ্য নয় এবং আঙ্গুলের ছাপ আইক্লাউড কিংবা অন্য কোন সার্ভারে পাঠানো হবেনা।

আইফোন ফাইভ এসে নতুন এ-সেভেন চিপ ব্যবহৃত হয়েছে। এটি হচ্ছে কোন স্মার্টফোনে প্রথমবারের মত দেয়া ৬৪ বিট চিপ, যা সিপিইউ স্পিডে ৪০x এবং গ্রাফিক্স পারফরমেন্সে ৫৬x উন্নয়ন আনবে। ডিভাইসটিতে এম৭ নামের আরেকটি “মোশন কো-প্রসেসর” যুক্ত করা হয়েছে যা এক্সেলেরোমিটার, জাইরোস্কোপ ও কম্পাস থেকে প্রাপ্ত ডেটা প্রসেস করবে। এটি অনেকটা মটো এক্সে থাকা ডেডিকেটেড মোশন কোরের মত কাজ করবে।

যতটা সস্তা আশা করা হয়েছিল, আইফোন ৫সি আসলে ততটা সস্তা নয়! ফিঙ্গারপ্রিন্ট অথেনটিকেশন ছাড়া আইফোন ৫এস খুব বেশি চমক দিচ্ছেনা

আইফোন ৫এস এর ক্যামেরা সেন্সরের মধ্যবর্তী ফাংশন এবং সাইজ বৃদ্ধি করা হলেও এটি সেই ৮ মেগাপিক্সেলই রয়ে গেছে। এতে থাকছে উন্নততর হোয়াইট ব্যালেন্স এডজাস্টমেন্ট, এক্সপোজার, টোন ম্যাপিং, অটোফোকাস ইত্যাদি। আরও থাকছে “ট্রু টোন ডুয়াল এলইডি ফ্ল্যাশ” যাতে একটি দেবে নীল রঙের আলো এবং অপরটি অ্যাম্বার লাইট এবং একত্রে উভয়ে বাস্তবসম্মত আলোকছটা দেবে। আইফোন ৫এসে পাবেন ১০এফপিএস বার্স্ট মুড যা ব্যবহার করে আপনি যতক্ষণ ইচ্ছে শাটার প্রেস করে ছবি তুলতে পারবেন। আরও আছে ১২০ এফপিএস ৭২০পি স্লো মোশন ভিডিও, ২৮ মেগাপিক্সেল প্যানোরামা প্রভৃতি। ডিভাইসটির স্ট্যান্ডবাই ব্যাটারি ব্যাকআপ হবে ২৫০ ঘন্টা। এর ইউসেজ টাইম পাবেন ১০ ঘন্টা।

আইফোন ৫এস এর বিক্রি শুরু হবে ২০ সেপ্টেম্বর। আর ডিসেম্বর নাগাদ তা ১০০র বেশি দেশে পৌঁছে যাবে। দুই বছরের চুক্তিতে এর ১৬ জিবি ভ্যারিয়েন্টের দাম পড়বে ১৯৯ ডলার, ৩২জিবি-২৯৯ ডলার এবং ৬৪জিবি-৩৯৯ ডলার। স্মার্টফোনটির আনলকড ভার্সনের দাম হবে ৬৪৯ মার্কিন ডলার।

আইফোন ৫সি

iPhone 5c imageক্যালিফোর্নিয়ার ঐ অ্যাপল ইভেন্টের অন্যতম মূল আকর্ষণ ছিল অপেক্ষাকৃত কম মূল্যের রঙিন আইফোন ফাইভ সি, যা নিয়ে বহুদিন ধরেই গুজব চলে আসছে। ডিভাইসটির ব্যাক এবং সাইড কভার একই পার্টের অন্তর্ভুক্ত। আইফোন ৫সি’তে পাবেন ৪ ইঞ্চি (১১৩৬ x ৬৪০পি, ৩২৬পিপিআই) আইপিএস টাচস্ক্রিন রেটিনা ডিসপ্লে, এ৬ প্রসেসর, ৮মেগাপিক্সেল ব্যাক-১.২ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরা, এলটিই, ওয়াইফাই, ব্লুটুথ ইত্যাদি। ২৯ ডলার দামে এর বাড়তি রঙিন কেস পাওয়া যাবে।

স্মার্টফোনটি আইওএস ৭ অপারেটিং সিস্টেম ব্যবহার করবে। দুই বছরের চুক্তিতে ১৬জিবি-৯৯ ডলার এবং ৩২জিবি-১৯৯ ডলার মূল্য নিয়ে ২০ সেপ্টেম্বর থেকে লঞ্চ করা হবে। তবে এর আনলকড ভার্সন পেতে পারেন ৫৪৯ মার্কিন ডলারে।

তো, কেমন লাগল অ্যাপলের নতুন এই আইফোন জুটি?

প্রযুক্তির সব তথ্য জানতে ভিজিট করুন www.banglatech24.com সাইট। নতুন পোস্টের নোটিফিকেশন ইমেইলে পেতে এই লিংকে গিয়ে ফ্রি সাবস্ক্রাইব করুন!

 
Advertisements

Comments

1 Comment to ফিঙ্গারপ্রিন্টযুক্ত নতুন আইফোন ৫এস এবং রঙিন আইফোন ৫সি আনছে অ্যাপল!

Leave a Reply