বিক্রির আগেই নতুন এন্ড্রয়েড ফোনে ভাইরাস!

By -

প্রায় ৩০টি ভিন্ন ভিন্ন এন্ড্রয়েড স্মার্টফোন ও ট্যাবলেটে নতুন অবস্থায় ম্যালওয়ার/ভাইরাস পাওয়া গেছে। এসকল ফোন/ট্যাব কোনো ব্যবহারকারী ব্যবহার শুরুর আগেই তাতে ভাইরাস ইনস্টল করা ছিল। এই বিপজ্জনক বিষয়টি চেক পয়েন্ট নামের একটি সাইবার সিকিউরিটি সংস্থা আবিষ্কার করেছে। এর ঝুঁকিতে রয়েছে স্যামসাং, এলজি এবং গুগলের মত বড় বড় কোম্পানির ডিভাইস।

সর্বশেষ প্রযুক্তি বিষয়ক তথ্য সরাসরি আপনার ইমেইলে পেতে ফ্রি সাবস্ক্রাইব করুন!

Join 1,459 other subscribers

চেক পয়েন্ট সিক্যুরিটি ফার্ম তাদের দুটি কর্পোরেট ক্লায়েন্টের সদস্যদের এন্ড্রয়েড ফোনে কিছু “গুরুতর সংক্রমক” ম্যালওয়ার পেয়েছে। এই ক্লায়েন্টদের মধ্যে রয়েছে একটি টেলিযোগাযোগ কোম্পানি এবং অন্যটি একটি বহুজাতিক কোম্পানি।

গুগল নেক্সাস, শাওমি, অপো, জেডটিই, স্যামসাং, এলজির মত বড় ব্র্যান্ডের কিছু ফোনে প্রিইনস্টলড অবস্থায় এসব ম্যালওয়্যার পাওয়া গেছে। চেকপয়েন্টের ব্লগ পোস্ট অনুযায়ী ফোনগুলোর তালিকা নিম্নরূপঃ

  1. Samsung Galaxy Note 2
  2. LG G4
  3. Samsung Galaxy S7
  4. Samsung Galaxy S4
  5. Samsung Galaxy Note 4
  6. Samsung Galaxy Note 5
  7. Samsung Galaxy Note 8
  8. Xiaomi Mi 4i
  9. Galaxy A5
  10. ZTE x500
  11. Samsung Galaxy Note 3
  12. Samsung Galaxy Note Edge
  13. Samsung Galaxy Tab S2
  14. Samsung Galaxy Tab 2
  15. Oppo N3
  16. Vivo X6 plus
  17. Nexus 5
  18. Nexus 5X
  19. Asus Zenfone 2
  20. Lenovo S90
  21. Oppo R7 plus
  22. Xiaomi Redmi
  23. Lenovo A850

এসকল মডেলের সকল ডিভাইসেই যে ম্যালওয়ার আক্রান্ত এমন নাও হতে পারে। তবে ফলাফল অনুযায়ী ব্যবহারকারীদের গ্রহণ করার পূর্বে এসব ফোনের স্যাম্পল ডিভাইসে ম্যালওয়ার ছিল বলেই জানিয়েছে চেক পয়েন্ট। নিরাপত্তা প্রতিষ্ঠানটি বলছে, এগুলো ফোন নির্মাতাদের রমে ছিলনা, তবে সাপ্লাই চেইনের কোনো এক পর্যায়ে এই ম্যালওয়্যারগুলো ফোনে ইনস্টল করা হয়েছে। যদিও কারা এসব ম্যালওয়্যার ইনস্টল করেছে তা নিশ্চিত না। এগুলো ব্যবহারকারীদের তথ্য চুরি করতে পারে এবং এমনকি ব্যবহারকারীর ডেটা নিয়ে ফাঁস করার ভয় দেখিয়ে চাঁদাও চাইতে পারে।

এসব ম্যালওয়্যার থেকে মুক্তি পেতে এন্ড্রয়েড ফোনে এন্টিভাইরাস ইনস্টল করে একবার স্ক্যান করে দেখতে পারেন। যদি ম্যালওয়্যার/ভাইরাস পান তাহলে কিছু কিছু ম্যালওয়্যার এন্টিভাইরাসের সাহায্যে মুছে ফেলা সম্ভব বলে জানিয়েছে চেক পয়েন্ট। ফোনের অরিজিনাল রম ইনস্টল করেও মাঝপথে আসা এসব ম্যালওয়্যার থেকে রেহাই পাওয়া সম্ভব। আর এটাই সবচেয়ে কার্যকর পন্থা।

প্রযুক্তির সব তথ্য জানতে ভিজিট করুন www.banglatech24.com সাইট। নতুন পোস্টের নোটিফিকেশন ইমেইলে পেতে এই লিংকে গিয়ে ফ্রি সাবস্ক্রাইব করুন!

 

Comments

Leave a Reply