“লাইক” বাটন নিয়ে আইনী ঝামেলায় ফেসবুক

By -

facebook1280

সামাজিক যোগাযোগের সাইট ফেসবুক তাদের বহুল আলোচিত “লাইক” বাটনের ব্যবহার এবং অন্যান্য বৈশিষ্ট্য নিয়ে আইনী ঝামেলার সম্মুখীন হচ্ছে। মৃত ডাচ প্রোগ্রামার, জোজেভ এভরাডাস ভ্যান মিরের পক্ষ থেকে একটি পেটেন্ট হোল্ডিং কোম্পানি ফেসবুকের বিরুদ্ধে মেধাস্বত্ব লঙ্ঘনের অভিযোগ এনেছে।

সর্বশেষ প্রযুক্তি বিষয়ক তথ্য সরাসরি আপনার ইমেইলে পেতে ফ্রি সাবস্ক্রাইব করুন!

Join 1,331 other subscribers

যুক্তরাষ্ট্রের ফেডারেল কোর্টে দায়ের করা ঐ মামলায় বাদীপক্ষ রেমব্র্যান্ট সোশ্যাল মিডিয়া দাবী করেছে ইন্টারনেট ভিত্তিক প্রতিষ্ঠানটি তাদের সাইটে “লাইক” ফিচার ব্যবহারের জন্য এর পেটেন্ট ধারকের কোন অনুমতি নেয়নি।

অবশ্য ফেসবুক এই বিষয়ে এখনই কোন মন্তব্য করতে রাজী হয়নি।

পেটেন্ট কোম্পানিটির আইনজীবী টম মেলশিমার বলেন, “আমরা জানি ও বিশ্বাস করি রেমব্র্যান্টের মেধাস্বত্ব সামাজিক যোগাযোগের ক্ষেত্রে একটি গুরুত্বপূর্ণ ভিত্তি, এবং আমাদের প্রত্যাশা একজন বিচারক জুরিবোর্ডের সাথে তথ্যপ্রমাণের অনুরূপ উপসংহারে পৌঁছুবেন”।

মিঃ মিরের বিধবা স্ত্রী ফেসবুকের কাছ থেকে মেধাস্বত্ব লঙ্ঘনের জন্য ক্ষতিপূরণ দাবী করছেন।

বাদীপক্ষ বলছে, ফেসবুক আজকে যে সফল অবস্থানে আছে, তার পেছনে লাইক ফিচারটির অবদান অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ।

প্রোগ্রামার মিরের পেটেন্ট করা প্রযুক্তির মালিকানা বর্তমানে রেমব্র্যান্টের হাতে। তিনি ২০০৪ সালে তার মৃত্যুর পূর্বে এগুলো ব্যবহার করে একটি সামাজিক যোগাযোগের সাইট “সার্ফবুক” তৈরি করতে চেয়েছিলেন, যার মেধাস্বত্ব নিবন্ধন হয় ১৯৯৮ সালে, অর্থাৎ ফেসবুক চালু হওয়ার পাঁচ বছর পূর্বে।

সার্ফবুক ছিল একটি সামাজিক ডায়েরির মত সেবা, যেটি ব্যবহার করে লোকজন পরিবার ও বন্ধু-বান্ধবের সাথে বিভিন্ন তথ্য শেয়ার করতে পারত। সেখানে তারা “লাইক” বাটন ক্লিক করে বিশেষ কোন কিছুকে সাধুবাদ জানাত। এ সম্পর্কিত বেশ কিছু তথ্য-প্রমাণ হাজির করা হয়েছে আদালতে। এখন ফেসবুককে আসলেই ক্ষতিপূরণ দিতে হয় কিনা, হলেও সেই পরিমাণ কত আসতে পারে সেসব নিয়ে এখনও কিছু জানা যায়নি।

প্রযুক্তির সব তথ্য জানতে ভিজিট করুন www.banglatech24.com সাইট। নতুন পোস্টের নোটিফিকেশন ইমেইলে পেতে এই লিংকে গিয়ে ফ্রি সাবস্ক্রাইব করুন!

 

Comments

1 Comment to “লাইক” বাটন নিয়ে আইনী ঝামেলায় ফেসবুক

Leave a Reply